প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নওগাঁঁয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহে সম্ভাব্য প্রার্থীরা ছুটছেন নির্বাচন অফিসে

আশরাফুল নয়ন, নওগাঁ প্রতিনিধি: দলীয়ভাবে মনোনয়ন ফরম উত্তোলন শেষ। এখন চলেছ সম্ভাব্য প্রার্থী যাচাই বাছাইয়ে সাক্ষাৎকার। তবে কোন আসন থেকে কে মনোনয়ন পাবেন এখন তা নিয়ে চলছে নানা জল্পনা-কল্পনা। সবকিছুর অবসান ঘটিয়ে যিনি দলীয় প্রতীকে সমর্থন পাবেন তার পেছনে কাজ করবেন তৃনমূল পর্যায়ের নেতাকর্মীরা।

দলীয়ভাবে জেলার বিভিন্ন আসন থেকে আওয়ামী লীগ ৩১ জন, বিএনপি ২৬ জন, জাতীয় পার্টি ৬ জন এবং জাসদ ২ জন সম্ভাব্য প্রার্থীরা মনোনয়ন ফরম উত্তোলন করেছেন। অপরদিকে চলছে জেলা নির্বাচন অফিস থেকে মনোনয়ন ফরম উত্তোলন।

দলীয় মনোনয়ন উত্তোলন সম্ভাব্য প্রার্থীরা ঢাকাতে অবস্থান করায় স্ব স্ব প্রার্থী সমর্থিত নেতাকর্মীরা জেলা নির্বাচন অফিসে এসে পক্ষ নিয়ে মনোনয়ন ফরম উত্তোলন করছেন। শনিবার নওগাঁয়-৬ আসনে (রানীনগর-আত্রাই) বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার হোসেন বুলুর পক্ষে নওগাঁ আইনজীবী সমিতির সদস্য অ্যাডভোকেট জাকারিয়া হোসেন মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন। এ উপলক্ষে সকাল থেকে জেলা নির্বাচন অফিস কার্যালয়ে সমর্থকরা ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা নিয়ে জমায়েত হতে থাকে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, রানীনগর থানা বিএনপির সভাপতি এসএস আল ফারুক জেমস, ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক একেএম জাকির হোসেন, সিনিয়র সহ-সভাপতি কাজী রবিউল ইসলাম, যুবদলের সভাপতি এমদাদুল হক, সাধারন সম্পাদক মোজাক্কির হোসেন, ছাত্রদলের আহ্বায়ক শরিফ মাহমুদ সোহল, আত্রাই বিএনপি আহ্বায়ক কমিটি মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মান্নান ও তসলিম উদ্দিন, যুবদলের সভাপতি ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান একরামুল বারী রঞ্জু, যুবদলের সাধারন সম্পাদক পারভেজ ইকবালসহ দুই উপজেলার বিএনপি ও তার সকল অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

নওগাঁ জেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, জেলার ১১টি উপজেলায় ৯৯টি ইউনিয়ন এবং ৩ টি পৌরসভা। জেলায় ৬টি সংসদীয় আসনে বিভক্ত। মোট ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ৬৯৯টি, সম্ভাব্য ভোট কক্ষ ৩ হাজার ৯১৮ টি এবং ভোটার এলাকা ২ হাজার ৬৪০ টি। মোট ভোটার ২০ লাখ ২ হাজার ৫২৫ জন। এর মধ্যে মহিলা ভোটার ১০ লাখ ৭ হাজার ৩৬১ জন এবং পুরুষ ভোটার ৯ লাখ ৯৫ হাজার ১৪ জন।

নওগাঁ -১ আসন পোরশা-সাপাহার ও নিয়ামতপু উপজেলায় ভোটার সংখ্যা ৪ লাখ ২ হাজার ৬২২ জন, নওগাঁ-২ আসন পত্নীতলা ও ধামইরহাট উপজেলায় ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ২২ হাজার ৮০ জন, নওগাঁ-৩ আসন বদলগাছী ও মহাদেবপুর উপজেলায় ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ৮২ হাজার ৪৮৭ জন, নওগাঁ-৪ আসন মান্দা উপজেলায় ভোটার সংখ্যা ২ লাখ ৮৯ হাজার ২২৬ জন, নওগাঁ-৫ আসন সদর উপজেলায় ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ১১ হাজার ৭৫২ জন এবং নওগাঁ-৬ আসন রানীনগর ও আত্রাই উপজেলায় ভোটার সংখ্যা ২ লাখ ৯৪ হাজার ৩৫৮ জন।

মনোনয়ন ফরম উত্তোলনকারী প্রার্থীরা ফরম জমা দেয়ার সময় ২০ হাজার টাকা ট্রেজারী চালানের মাধ্যমে অথবা ব্যাংক ড্রাফট/পে-অর্ডারের জমা রশিদ সংযুক্ত থাকতে হবে। সেই সাথে ছবি ছাড়া ভোটার তালিকার সিডি মূল্য প্রতি ইউনিয়ন ও পৌর সাধারন ওয়ার্ডের জন্য ৫০০ টাকা হারে জমা দিতে হবে। এছাড়া একজন প্রার্থী নির্বাচনী ব্যয়ের জন্য প্রতি ভোটার ১০ টাকা হারে সর্বোচ্চ ২৫ লাখ টাকা পর্যন্ত খরচ করতে পারবেন।

রানীনগর থানা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক একেএম জাকির হোসেন বলেন, ১৯৯১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত ক্ষমতায় ছিলেন গৃহায়ণ ও গণপূর্ত সাবেক প্রতিমন্ত্রী আলমগীর কবীর। ২০০৬ সালে বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের শেষের দিকে আলমগীর কবির এলডিপিতে যোগ দেন। একই বছরে এলডিপি থেকে পদত্যাগ করেন। সম্প্রতি তিনি বিএনপিতে যোগদিয়ে মনোনয়ন ফরম উত্তোলন করেছেন। প্রায় ১০ বছর তাঁর ছোট ভাই কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার হোসেন বুলু এ দুই উপজেলার বিএনপির নেতাকর্মীদের অভিভাবক হিসেবে শক্ত হাতে দলের হাল ধরেছিলেন। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বীরমুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার হোসেন বুলুকে মনোনয়ন দেয়া হলে জয় নিশ্চিত। আশা করছি আমাদের নেতাকর্মীরা দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে ধানের শীষ প্রতীকে এই আসন থেকে বিজয়ী করবে ইনশা আল্লাহ।

নওগাঁ জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শাহিনুর ইসলাম প্রামাণিক বলেন, শনিবার পর্যন্ত বিভিন্ন আসন থেকে ১৯ টি মনোনয়ন ফরম বিতরণ করা হয়েছে। ইতোমধ্যে আমাদের ভোটার তালিকা এবং প্যানেল প্রস্তুত হয়ে গেছে। আমরা মোটামুটি শতভাগ প্রস্তুতি নিয়েছি। এখন পর্যন্ত নওগাঁয় কোন অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ