প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘খেলাপি ঋণ সমস্যা সমাধানে ত্রিপক্ষীয় আলোচনা খুবই কার্যকর হয়’

আশিক রহমান : রুপালী ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যান ড. আহমদ আল কবির বলেছেন, খেলাপি ঋণ সমস্যায় ত্রিপক্ষীয় আলোচনা সত্তর শতাংশ ভালো ফল দেয়। এ পদ্ধতি খুবই কার্যকর। তাই এ সমস্যা সমাধানে আলোচনা-সমঝোতার পথে যাওয়াই উত্তম।

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে তিনি বলেন, খেলাপি ঋণ কোনোভাবে আমাদের জন্য কাম্য নয়। হতে পারে না। সাধারণত নির্বাচনের সময় ঋণ খেলাপিরা রি- পে করে, রি-সিডিউল করে। একটা সুনির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা দিয়ে রি-সিডিউল করে। এর ব্যত্যয় ঘটিয়ে যদি কোনো ব্যাংক বা আর্থিক প্রতিষ্ঠান আবারও ঋণ নিয়ে থাকে তাহলে বাংলাদেশ ব্যাংককে খুব শক্তভাবে দেখা উচিত। কঠোর অবস্থান থেকে সরে উচিত নয়। করলে অনৈতিক হবে।

তিনি আরও বলেন, ব্যত্যয় ঘটে থাকলে অর্থনীতির জন্য খারাপ সংবাদ হবে। তবে রি-সিডিউলেরও একটা লিমিট রয়েছে। কতোবার তা হতে পারে? একটা গাইড লাইন রয়েছে। এর ভেতরেই থাকতে হবে। বাংলাদেশকে ব্যাংককে তা কঠোরভাবে মনিটরিং করা উচিত। সেটা করছে বলেও বিশ্বাস করি আমি।

এক প্রশ্নের জবাবে ড. আহমদ আল কবির বলেন, ঋণ খেলাপি সমস্যা থেকে বের হওয়ার জন্য ত্রিপাক্ষিক বৈঠক হওয়া উচিত। গ্রাহক, বাংলাদেশ ব্যাংক ও সংশ্লিষ্ট মিলে ত্রিপক্ষীয় বৈঠকে বসা উচিত খেলাপি ঋণ সমস্যা সমাধানে। আলোপ-আলোচনার মাধ্যমে সমাধান করাই উত্তম। কারণ ভয় বা আইন দিয়ে বেশিদ্রূ এগোনো যাবে না।

তিনি বলেন, সত্তর শতাংশ ক্ষেত্রে ত্রিপক্ষীয় আলোচনা ভালো ফল দেয়। আর ত্রিশ শতাংশ ক্ষেত্রে হয়তো ইতিবাচক ফল দেয় না। সেক্ষেত্রে শাস্তিমূলক ব্যবস্থাগ্রহণ দরকার। প্রয়োজনে বিদ্যমান আইন সংশোধন করে আরও কঠোর করতে হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ