প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘দীর্ঘ দশ বছর বন্ধ থাকার পর আবারো চালু হলো মান্নার প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান’

মহিব আল হাসান : দীর্ঘ সময় বন্ধ থাকার পর আবরও নায়ক মান্নার প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ‘কৃতাঞ্জলী কথাচিত্র’ চালু হয়েছে। এই প্রতিষ্ঠানটির সর্বশেষ ছবি ছিল প্রায়ত নায়ক মান্না অভিনীত ‘পিতা মাতার আমানত’। এটি পরিচালনা করেছিরেন এফ আই মানিক। দীর্ঘ দশ বছর বন্ধ থাকার পর ‘জ্যাম’ ছবির শুটিং দিয়ে সচল হলো প্রতিষ্ঠানটি। নায়ক মান্নার স্ত্রী শেলী মান্না এখন এই প্রতিষ্ঠানটির হাল ধরেছেন।

প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে জানানো হয় গত সোম ও মঙ্গলবার পুবাইলে দুদিন ছবির শুটিং হয়। ছবির শুটিংয়ে অংশ নেন সুব্রত ও রেবেকা। সেখানে ছবিটির সড়ক দূর্ঘটনার দৃশ্য ধারণ করা হয়। ‘জ্যাম’ শিরোনামে ছবিটির গল্প লিখেছেন প্রয়াত সাংবাদিক আহমদ জামান চৌধুরী। আর ছবিটি পরিচালনা করছেন নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল।
ছবিটির প্রধান সহকারী পরিচালক রাইসুল ইসলাম রনি বলেন, ‘আমরা পুবাইলে ছবিটির শুটিং শুরু করেছি। ছবির বেশকিছু সিক্যুয়েন্সের কাজ শেষ করব পুবাইলে। শুরুতেই সুব্রত দাদা ও রেবেকা আপার রোড একসিডেন্ট দিয়ে শুটিং শুরু করেছি।

পরিচালক নেয়মুল বলেন, ‘আমরা কিছু ফ্ল্যাশব্যাকের শুটিং করেছি। গল্পের প্রয়োজনে ছবিতে কয়েকটি ফ্ল্যাশব্যাক সিক্যুয়েন্স রাখা আছে। যে গুলো ছবির নায়ক-নায়িকার মনে নাড়া দেবে। আমরা ছবিটির বেশকিছু ফ্ল্যাশব্যাকের দৃশ্য নায়ক শুভ ও নায়িক পূর্ণিমার কল্পনায় আসবে।

ছবিটির কবে থেকে টানা শুটিং শুরু হবে জানতে চাইলে নেয়ামুল বলেন, ‘আগামী ডিসেম্বরে ছবির শুটিং শুরু কররি চিন্তা করেছি। তবে নির্বাচনের কারণে শুটিং পিছাতে পারে। আমরা সব ধরনের প্রস্তুতি নিচ্ছি। চিত্রনাট্য তৈরির কাজ শেষ করেছি। এখন লোকেশনগুলো আমরা নির্ধারণ করছি। আশা করি টানা শুটিং করে কাজটি শেষ করতে পারব।’

‘কৃতাঞ্জলী কথাচিত্র’ থেকে প্রযোজিত শেষ চলচ্চিত্র ছিল এফ আই মানিক পরিচালিত ‘পিতা মাতার আমানত’। মান্নার মৃত্যুর পর নতুন কোনো ছবি নির্মাণ হয়নি এই প্রযোজনা সংস্থা থেকে। এবারই মান্নার স্ত্রী নতুন করে আবার ছবি তৈরির কাজ শুরু করলেন।

প্রতিষ্ঠানটি এর আগে নির্মাণ কওে ‘লুটতরাজ’, ‘লাল বাদশা’, ‘আব্বাজান’, ‘স্বামী স্ত্রীর যুদ্ধ’, ‘দুই বধূ এক স্বামী’, ‘মনের সাথে যুদ্ধ’, ‘মান্না ভাই’ ও ‘পিতা মাতার আমানত’। ছবিগুলো সেসময় ব্যবসায়িকভাবে বেশ সাফল্য পায়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ