প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ডিএসইর সম্ভাব্য তালিকাচ্যুতির
১২ কোম্পানির ‘নো’ ডিভিডেন্ড ঘোষণা

মাসুদ মিয়া : দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই সম্ভাব্য তালিকাচ্যুতির ১২ কোম্পানির ‘নো’ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করা হয়েছে।

গত ৫ বছর বা এর বেশি সময় ধরে লভ্যাংশ দেয় না এমন ১৫টি কোম্পানিকে গত ৭ আগস্ট তালিকাচ্যুতির (ডিলিস্টিং) লক্ষে কারণ দর্শানোর চিঠি দেয় ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) কর্তৃপক্ষ। এসব কোম্পানির মধ্যে ১২টির পরিচালনা পরিষদ ২০১৭-১৮ অর্থবছরের ব্যবসায়ও লভ্যাংশ না দেওয়ার ঘোষণা করেছে। ডিএসই স‚ত্রে এ তথ্য জানা গেছে। ডিএসইর সম্ভাব্য তালিকাচ্যুতির কোম্পানিগুলো হচ্ছে- মেঘনা পেট ইন্ডাস্ট্রিজ, মেঘনা কনডেন্সড মিল্ক, ইমাম বাটন, বেক্সিমকো সিনথেটিক্স, সাভার রিফ্রেক্টরিজ, দুলামিয়া কটন, সমতা লেদার কমপ্লেক্স, শ্যামপুর সুগার মিলস, জিল বাংলা সুগার মিলস, শাইনপুকুর সিরামিকস, সোনারগাঁও টেক্সটাইল, জুট স্পিনার্স, আইসিবি ইসলামিক ব্যাংক, কে অ্যান্ড কিউ (বাংলাদেশ) ও ইনফরমেশন সার্ভিসেস নেটওয়ার্ক। ১৫ কোম্পানির মধ্যে ১৪ কোম্পানির ২০১৭-১৮ অর্থবছরের ব্যবসায় লভ্যাংশ সংক্রান্ত সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এরমধ্যে ১২টির পরিষদ এবছরও লভ্যাংশ না দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে। আর ২টির পরিষদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ডিসেম্বর ক্লোজিং হওয়ায় বাকি ১টি কোম্পানির এখনো লভ্যাংশ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়ার সময় হয়নি।

লভ্যাংশ ঘোষণা না করা কোম্পানিগুলো হচ্ছে- মেঘনা পেট ইন্ডাস্ট্রিজ, মেঘনা কনডেন্সড মিল্ক, ইমাম বাটন, বেক্সিমকো সিনথেটিক্স, সাভার রিফ্রেক্টরিজ, দুলামিয়া কটন, সমতা লেদার কমপ্লেক্স, শ্যামপুর সুগার মিলস, জিল বাংলা সুগার মিলস, শাইনপুকুর সিরামিকস, সোনারগাঁও টেক্সটাইল ও জুট স্পিনার্স। কে অ্যান্ড কিউ (বাংলাদেশ) এর পরিচালনা পরিষদ ২০১৭-১৮ অর্থবছরের ব্যবসায় ৫ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। আর ইনফরমেশন সার্ভিসেস নেটওয়ার্কের পরিচালনা পর্ষদ ১ শতাংশ নগদ ও ৪ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে।এর আগে গত ১৮ জুলাই দীর্ঘদিন ধরে উৎপাদন বা ব্যবসায়িক কার্যক্রম বন্ধ থাকা রহিমা ফুড ও মডার্ণ ডাইং অ্যান্ড স্ক্রিন প্রিন্টিংকে তালিকাচ্যুত (ডিলিস্টিং) করেছে ডিএসই কর্তৃপক্ষ। অদূর ভবিষ্যতে কোম্পানি ২টির উৎপাদন শুরু করার কোনো সম্ভাবনা না থাকায় এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

সম্পাদনা :  শাহীন চৌধুরী

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ