প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কমলগঞ্জে আতঙ্কিত খাসিয়া সদস্যরা

স্বপন কুমার দেব, মৌলভীবাজার : মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জের ডবলছড়া খাসিয়া পুঞ্জির পান জুম এলাকায় গাছ চুরিতে বাঁধা দেয়ায় দায়ের কোপে গত ৪ অক্টোবর বৃহস্পতিবার সকালে প্রিং খাসিয়া (৪০) আহত হয়েছিলেন। ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন খাসিয়া সদস্য এখন পঙ্গু হওয়ার আশঙ্কায় রয়েছে।

এ দিকে আদালতে আত্মসমর্পণ করে আসামীরা জামিন লাভ করায় নতুন করে হামলার আশঙ্কায় আতঙ্কের মাঝে রয়েছেন ডবলছড়া খাসিয়া পুঞ্জির সদস্যরা। সোমবার (১২ নভেম্বর) মৌলভীবাজার আদালতে হাজির হয়ে জামিন প্রার্থনা করলে আদালত আসামীদের জামিন মঞ্জুর করেন।

এক খাসিয়া সদস্যকে দা দিয়ে কূপিয়ে হামলাকারী ৩ গাছ চোর জয়নাল মিয়া (৪০), জমশেদ মিয়া (৩৮) ও কামরুল মিয়া (৩৫)-এর নাম উল্লখ করে গত ৫ অক্টোবর কমলগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেছিলেন সুমের খাসিয়া।

ডবলছড়া খাসিয়াা পুঞ্জির হেডম্যান ভি প্রধান বলেন, ঘটনার পর থেকে আসামীরা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়ালেও থানায় মামলা দায়েরের ১ মাস ৮ দিনেও পুলিশ আসামীদের গ্রেফতার করতে পারেনি। অথচ গতকাল সোমবার আসামীরা মৌলভীবাজারে কমলগঞ্জ আমলী আদালত-৩ এ হাজির হয়ে জামিন প্রার্থনা করে। আদালত শুনানি শেষে আসামীদের জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন। আসামীদের জামিন লাভের খবর শুনে ডবলছড়া খাসিয়া পুঞ্জির মাঝে নতুন করে আতঙ্ক বিরাজ করছে। মামলার বাদী সুমের খাসিয়া বলেন এমনিতেই জামিনের আগ পর্যন্ত আসামীরা নানাভাবে ডবলছড়া খাসিয়া পুঞ্জির খাসিয়া পরিবার সদস্যদের হুমকি প্রদান করছিল।

এখন যেহেতু তারা জামিন লাভ করেছে সেহেতু আবারও খাসিয়াদের উপর হামলা হতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করছে সুমের খাসিয়া। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন খাসিয়া সদস্য ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, হয়তো পুলিশি প্রাথমিক তদন্ত প্রতিবেদনে দুর্বলতা ছিল বলে সহজেই আসামীরা জামিন লাভ করেছে। তারা আরও বলেন ডাকা পঙ্গু হাসপাতাল সূত্রে তারা জানতে পেরেছেন প্রিং খাসিয়া বাম হাত আর ভাল নাও হতে পারে। তাকে পঙ্গুত্ব বরণ কওে নিতে হবে।

তবে এ মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক ফরিদ মিয়া বলেন, আসামীদের জামিন লাভে তারাও হতবাক হয়েছেন। ৩০২৪/৩২৬/ ও ৩০৭ ধারার এ মামলায় সাধারণত আসামীদের জামিন হওয়ার কথা নয়। আসামীরা আদালতে আত্ম সমর্পণ করলে আদালত পরিদর্শক শুনানিকালে জামিন না মঞ্জুর করার জোর দাবি জানিয়েছিলেন। তবে আদালত কোন অবস্থানে দিয়েছেন সেটি বিজ্ঞ আদালতের বিষয়।

উল্লেখ্য, গত ৪ অক্টোবর সকাল দশটায় ডবলছড়া খাসিয়া পুঞ্জির পান জুমে প্রবেশ করে একটি গাছ কাটছিল গাছ চোর জয়নাল মিয়া (৪০), জমশেদ মিয়া (৩৮) ও কামরুল মিয়া(৩৫)। এসময় প্রিং খাসিয়া বাধা দিলে গাছচোরেরা তাদের হাতের দা দিয়ে কুপিয়ে তাকে গুরুতরভাবে আহত করেছিল। প্রিং খাসিয়াকে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতাল হয়ে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। দায়ের কুপে প্রিং খাসিয়া বাম হাতের কব্জি থেকে আঙ্গুলগুলি প্রায় বিচ্ছিন্ন হয়ে গিয়েছিল। ২ দিন পর তাকে ঢাকার পঙ্গ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। এখন সে সেখানে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ