Skip to main content

বৃহস্পতিবার রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু করতে চায় মিয়ানমার

তরিকুল ইসলাম : আগামী বৃহস্পতিবার (১৫ নভেম্বর) থেকে প্রথম ব্যাচে রোহিঙ্গা প্রত্যাবসন শুরু করতে চায় মিয়ানমার। উভয় দেশের যৌথ ওয়াকিং গ্রুপের বৈঠকে প্রত্যাবাসন সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর এই প্রথম আনুষ্ঠানিক ভাবে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের আগ্রহের কথা জানিয়েছে দেশটি। সোমবার বিকেলে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পাঠানো একটি কূটনৈতিক পত্রের মাধ্যমে বৃহস্পতিবার প্রত্যাসন শুরুর বিষয়েটি জনায় মিয়ানমার। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বশীল এক কর্মকর্তা এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেছেন, মিয়ানমারের চূড়ান্ত সম্মতি অনুযায়ী প্রথম ব্যাচে ৪৮৫টি পরিবারের ২ হাজার ২৬০ জন রোহিঙ্গা ফেরত যাবেন। আগামী ১৫ নভেম্বর রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু হবে বলে আমরাও আশাবাদী। এ ছাড়া রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের লক্ষ্যে মিয়ানমারকে আরো ২২ হাজার ৪৩২ জন রোহিঙ্গার নতুন তালিকা হস্তান্তর করা হয়েছে। রোহিঙ্গাদের জন্য রাখাইনে বাড়ি-ঘর তৈরির কাজে সহায়তা করছে ভারত ও চীন। ভারত সেখানে ২৮৫টি আর চীন ১ হাজার বাড়ি-ঘর তৈরি করেছে। রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়ায় যুক্ত থাকবে জাতিসংঘ। ঢাকায় বাংলাদেশ ও মিয়ানমারের মধ্যে যৌথ ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠকে রোহিঙ্গাদের যে তালিকা হস্তান্তর করা হয়েছে, সেই তালিকা একইদিন জাতিসংঘের শরণার্থী অফিসকেও হস্তান্তর করা হয়েছে।

অন্যান্য সংবাদ