Skip to main content

টি-টোয়েন্টি সিরিজেও ভারতের কাছে ধবল ধোলাই উইন্ডিজের

স্পোর্টস ডেস্ক: সিরিজের শেষ ম্যাচে উইন্ডিজের দেয়া ১৮২ রানের বড় লক্ষ্যে খেলতে নেমে ৬ উইকেট হাতে রেখেই জয় তুলে নেয় ভারত। অবশ্য লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি তাদের। তারা দলীয় ১৩ রানে ওপেনার রোহিত শর্মার উইকেট হারায়। ব্যাট হাতে ব্যর্থ হয়েছেন আরেক টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান লোকেশ রাহুল। তিনি ফিরেছেন ১৭ রানের ইনিংস খেলে। তৃতীয় উইকেটে ১৩০ রান যোগ করেছেন শিখর ধাওয়ান ও ঋষাভ পান্ট। মূলত এই জুটিই ভারতকে জয়ের পথে এগিয়ে নিয়ে যায়। দলকে জয়ের প্রান্তে পৌঁছে দিয়ে পান্ট ফিরেছেন ৫৮ রান করে। ধাওয়ান মাত্র ৮ রানের জন্য সেঞ্চুরি বঞ্চিত হয়েছেন। তিনি ৯২ রান করে নির্ধারিত ২০ ওভারের মাত্র ১ বল আগে আউট হয়েছেন। শেষ বলে ভারতের প্রয়োজন ছিল ১ রান। শেষ বলে ১ রান নিয়ে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছেড়েছেন মনিষ। তিনি শেষ পর্যন্ত অপরাজিত ছিলেন ৪ রান করে। দীনেশ কার্তিক কোনো রান না করেই অপরাজিত ছিলেন। উইন্ডিজের হয়ে কিমো পল ২টি উইকেট দখল করেছেন, ফ্যাবিয়ান অ্যালেন ও ওশেন থমাস নিয়েছেন ১টি করে উইকেট। এর আগে, চেন্নাইয়ে আগে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুটা দারুণ করে উইন্ডিজ। ওপেনিং জুটিতে শাই হোপ ও শিমরন হ্যাটমিয়ার যোগ করেন ৫১ রান। হোপ ২৪ রান করে আউট হয়েছেন চাহালের বলে ওয়াশিংটন সুন্দরের হাতে ক্যাচ দিয়ে। দ্বিতীয় উইকেটে খুব বেশি রান যোগ করতে পারেননি হোপ ও রামদিন। হোপ ২৪ রান করে শিকার হয়েছেন চাহালের। আর রামদিন ১৫ রান করে ফিরেছেন সুন্দরের বলে বোল্ড হয়ে। মূলত চতুর্থ উইকেটে ড্যারেন ব্রাভো আর নিকোলাস পুরাণের অপরাজিত ৯৪ রানের জুটিতে লড়াইয়ের বড় পুঁজি পায় ক্যারিবিয়ানরা। ব্রাভো শেষ পর্যন্ত অপরাজিত ছিলেন ৪৩ রান করে। আর পুরাণ অপরাজিত ছিলেন ৫৩ রানের ইনিংস খেলে। ফল: ভারত ৬ উইকেটে জয়ী। ভারত: ১৮২/৪ (২০ ওভার) (ধাওয়ান: ৯২, প্যান্ট ৫৮) উইন্ডিজ: ১৮১/৩ (২০ ওভার) (পুরাণ ৫৩ *, চাহাল ২/২৮)