প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আগামীতে ভ্যাট, কর শুল্ক খেলাপিরাও নির্বাচনে অযোগ্য হবেন : এনবিআর চেয়ারম্যান

আবু বকর : আগামীতে ভ্যাট, কর শুল্ক খেলাপিরাও নির্বাচনে অযোগ্য হবেন। এ জন্য জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) করণীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করবে। দেশের উন্নয়ণে করদাতা বাড়ানো এবং কর ফাঁকি প্রতিরোধ হবে এনবিআরের প্রধান লক্ষ্য। এনবিআর চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া রবিবার তার দপ্তরে করমেলা উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, নিরপেক্ষ তদন্ত করলে দুদকেরও অনেক দুর্নীতি বের হবে।

এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, দেশকে মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত করতে হলে উল্লেখযোগ্য হাওে কর্মসংস্থান সৃষ্টি করতে হবে। শিল্পায়ন বাড়াতে হবে। এনবিআর এ লক্ষ্যে কাজ করছে। অর্থ বছরের প্রথম ৩ মাসে রাজস্ব আহরণের লক্ষ্যমাত্রা সন্তোষ জনক হয়নি। তবে বছর শেষে লক্ষষ্যমাত্রা অর্জিত হবে।

তিনি বলেন, ২০১০ সালে প্রথম আয়কর মেলা শুরু হয়। সেবার ৬০ হাজার ৫১২ জন সেবা গ্রহণ করেন। কর আদায় হয় ১১৩ কোটি টাকা। ২০১৭ সালে মেলায় সেবা গ্রহণকারীর সংখ্যা দাড়ায় ১১ লাখ ৬৯ হাজার ৫৬৯ জন। কর আদায় হয় ২ হাজার ২১৭ কোটি ৩৩ লাখ টাকা। বর্তমানে ৩৫ লাখ টিআইএন ধারীর মধ্যে ২০ লাখ রিটার্ণ দাখিল করেন।

আগামী ২ বছরের মধ্যে করদাতা ৩৫ লাখ এবং টিআইএন ধারীর সংখ্যা ৫০ লাখে উন্নীত করা হবে। তিনি জানান করজাল বাড়ানোর লক্ষ্যে উপজেলা পর্যায়ে কর অফিস সম্প্রসারণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এজন্য কর প্রশাসনে জনবল বাড়ানো হবে। সিটি কর্পোরেশনকে সাথে নিয়ে মহল্লায় মহল্লায় জরিপ পরিচালনা করে নতুন নতুন করদাতা খুজে বের করা হবে। পৌর ও ইউনিয়ন পরিষদ পর্যায়ের নির্বাচিত জন প্রতিনিধিদেও কর সক্ষমতা পর্যালোচনা করা হবে। সংবাদ সম্মেলনে এনবিআরের উর্ধতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ