প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

দুর্নীতির দায়ে ফিলিপাইনের সাবেক ফার্স্টলেডি ইমেলদার ৪২ বছর জেল

রাশিদ রিয়াজ : গত শুক্রবার গ্রেফতার করা হয় ফিলিপাইনের সাবেক ফার্স্টলেডি ইমেলদা মার্কোসকে। দুই দশক ধরে তার স্বামী ফার্দিনান্দ মার্কোস দোর্দন্ড প্রতাপের সঙ্গে ফিলিপাইন শাসন করেছেন। অন্তত ৭টি বড় ধরনের দুর্নীতির দায়ে আদালত ৮৯ বছরের ইমেলদাকে ৪২ বছরের কারাদ- দিয়েছে। তার বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ ছিল সুইস ব্যাংকে কুড়ি কোটি ডলার রেখেছিলেন। ইমেলদার বিরুদ্ধে দুর্নীতির সাক্ষীদাতাদের অনেকে মারা যাওয়ায় আদালতে তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণ হতে এত বিলম্ব ঘটল। স্পুটনিক

তবে আদালতের এ রায়ের বিরুদ্ধে ইমেলদা মার্কোসের আইনজীবী আপিল করবেন বলে সাবেক এই ফার্স্টলেডি এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন। তাকে কেন গ্রেফতার করা হয়েছে এব্যাপারেও তার আইনজীবী আদালতের শরণাপন্ন হবেন। ইমেলদার বিরুদ্ধে দেয়া এ রায়ের প্রশংসা করেছেন লরেট্টা এ্যান রোসালেস যিনি একজন সাবেক মানবাধিকার কমিশনার এবং ১৯৭০ সালে তিনি ফার্দিনান্ড মার্কোসের শাসনামলে নির্যাতনের শিকার হন। নিউইয়র্ক পোস্টকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে রোসালেস বলেন, আমি আনন্দিত এবং এখনো বিচার পাওয়ার সুযোগ রয়েছে। আদালতের এ রায়ের ফলে সত্য বের হয়ে এসেছে।

এদিকে ফিলিপাইনের প্রেসিডেন্ট রডরিগো দুতার্তে আদালতের এ রায়কে সন্মান জানিয়েছেন বলে তার মুখপাত্র জানান। প্রেসিডেন্ট দুতার্তে এও বলেন, কংগ্রেসওম্যান ইমেলদা মার্কোসের বিরুদ্ধে এ রায় প্রমাণ করেছে যে ফিলিপাইনে কার্যকর ও নিরপেক্ষ বিচার ব্যবস্থা রয়েছে যা কোনো পক্ষকে সমর্থন করে না এবং এখনো আইনের প্রতিকার পাওয়া যায়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ