প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ঘরোয়া ক্রিকেটের সেরা একাদশে নেই জাতীয় দলের কেউ

নিজস্ব প্রতিবেদক : দেশের সেরা ক্রিকেটারকে খুঁজে নিতে বলা হলে তা খুবই সহজেই করে ফেলবে দেশের ক্রিকেটভক্তরা। যদি বলা হয় বাংলাদেশের সেরা ক্রিকেটারকে তবে নির্দ্বিধায় সবাই বলবে মাশরাফি, সাকিব, তামিম, মুশফিক অথবা মাহমুদউল্লাহর নাম। কিন্তু এই নামগুলোর কাউকেই আপনি দেশের ঘরোয়া ক্রিকেটের সেরা ২০ জনের তালিকাতেও নেই। হ্যাঁ, অবাক হওয়ার মতোই ঘটনা! পঞ্চপা-ব খ্যাত বাংলাদেশ জাতীয় দলের এই পাঁচ কা-ারি দেশের ঘরোয়া ক্রিকেটে সেরা ২০ খেলোয়াড়ের তালিকায় নেই। পরিসংখ্যান তাই বলে।

সম্প্রতি বাংলাদেশের টেস্টে ধারাবাহিক ব্যর্থতার জের ধরে বার বার প্রশ্ন উঠছে কেনো দলে সুযোগ পান না তুষার ইমরান। প্রথম শ্রেণি ক্রিকেটের বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক তুষার ইমরান। নিয়মিত শতক-অর্ধশতক হাঁকিয়ে নিজেকেই ছাড়িয়ে যাচ্ছেন বারবার। দেশের একমাত্র ক্রিকেটার হিসেবে ১০ হাজার রানের গ-ি পেড়িয়ে এখন আছেন ১১ হাজারের কোটায়।

অপরদিকে বাংলাদেশের ক্রিকেটের প্রথম পোস্টারবয় খ্যাত মোহাম্মদ আশরাফুল ঘরোয়া ক্রিকেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সমানভাবে মাতিয়েছেন। বর্তমানে দলের ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে জড়িয়ে দলের বাইরে রয়েছেন। সম্প্রতি সেই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ শেষ হলেও আদৌ লাল-সবুজ জার্সিতে সুযোগ মিলবে কিনা তা নির্বাচকরাই ভালো বলতে পারবেন।

সদ্য শেষ হওয়া জাতীয় ক্রিকেটলিগের ফর্ম দেখে ঘরোয়া ক্রিকেটের একটি একাদশ তৈরি করা হয়েছে। যারা ঘরোয়া ক্রিকেটে নিজেদের সেরাটা দিয়ে যাচ্ছেন। সমীকরণ দেখে প্রশ্ন জাগতেই পারে তারা কেন জাতীয় দলে নতুন করে ফিরতে পারছেন না।

এই দলটির অধিনায়ক হিসেবে রাখা হয়েছে মোহাম্মদ আশরাফুলকে। ওপেনার হিসেবে থাকছেন শাহরিয়ার নাফিস ও এনামুল হক বিজয়কে। ফাস্ট ডাউনে রয়েছেন তুষার ইমরান। মিডল অর্ডারের দায়িত্বে থাকবেন অলোক কাপালি আর নাঈম ইসলাম। উইকেটরক্ষক হিসেবে রয়েছেন জহিরুল ইসলাম অমি। পেসার হিসেবে থাকছেন শাহদাত হোসেন রাজিব ও রবিউল ইসলাম। দলের স্পিন আক্রমণ সামলাবেন আব্দুর রাজ্জাক আর এনামুল হক জুনিয়র।

এক নজরে ঘরোয়া ক্রিকেটের সেরা একাদশ :
১. শাহরিয়ার নাফিস (ব্যাটসম্যান: প্রথম শ্রেণিতে ৭ হাজার ৪৯১ রান)
২. আনামুল হক বিজয় (ব্যাটসম্যান: প্রথম শ্রেণিতে ৫ হাজার ২৫০ রান)
৩. তুষার ইমরান (ব্যাটসম্যান: প্রথম শ্রেণিতে ১১ হাজার ১৩০ রান)
৪. মোহাম্মদ আশরাফুল (অধিনায়ক, প্রথম শ্রেণিতে ৭ হাজার ৬০৮রান)
৫. নাঈম ইসলাম ( অলরাউন্ডার: প্রথম শ্রেণিতে ৭ হাজার ৮০৬ রান, ৪৯ উইকেট)
৬. অলোক কাপালি (অলরাউন্ডার: প্রথম শ্রেণিতে ৮ হাজার ৭৯৭ রান ও ২০৮ উইকেট)
৫. জহিরুল ইসলাম অমি (উইকেটরক্ষক: প্রথম শ্রেণিতে ৭ হাজার ২২৬ রান, ১৩৮ ক্যাচ, ৯ স্ট্যাম্পিং)
৮. আব্দুর রাজ্জাক (স্পিনার: প্রথম শ্রেণিতে ৫৪৭ উইকেট)
৯. শাহাদাত হোসেন (পেসার: প্রথম শ্রেণিতে ২৪৯ উইকেট)
১০. রবিউল ইসলাম (পেসার: প্রথম শ্রেণিতে ২২৪ উইকেট)
১১. এনামুল হক জুনিয়র (স্পিনার: প্রথম শেণিতে ৪৫৮ উইকেট)

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ