প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ২০ টি অবৈধ হাটবাজারে চলছে রমরমা ব্যবসা

আমান উল্লাহ, কক্সবাজার : উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পকে কেন্দ্র করে ২০ টি অবৈধ বাজার বসিয়ে কোটি কোটি টাকা লেনদেনের অভিযোগ উঠেছে রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে। স্থানীয়দের দাবি, কতিপয় জনপ্রতিনিধি এবং নেতৃত্বস্থানীয় রোহিঙ্গাদের যোগসাজশেই চলছে এসব ব্যবসা। এ ব্যাপারে প্রশাসনের ভূমিকাও প্রশ্নবিদ্ধ বলে দাবি করেছেন তারা।

সরজমিনে ঘুরে দেখা যায়, উখিয়ার থাইংখালী, জামতলী, বাঘঘোনা, হাকিমপাড়া, ময়নার ঘোনা, কুতুপালং লম্বাশিয়া, মধুর ছড়া, ইরানী পাহাড়, মক্কা মদিনা পাহাড়, মদিনার ঘোনা, বাঁশের কেল্লা, টিভি রিলে কেন্দ্র, রাবার বাগান, বালুখালী, তেলিপাড়া, পানবাজার, পশ্চিম বালুখালী, তাজনিমারখোলা, শফিউল্লাহকাটা ক্যাম্পে ব্যাঙের ছাতার মতো গড়ে উঠেঠে ২০টির অধিক হাটবাজার। প্রতি বাজারে এক হাজারের বেশি দোকান রয়েছে। সম্পূর্ণ সরকারি বনভূমির জায়গায় গড়ে উঠা এসব বাজারের নিয়ন্ত্রক স্থানীয় প্রভাবশালী মহল ও জনপ্রতিনিধিরা।

বাজারে রয়েছে মুদির দোকান, ফার্মেসি, কাঁচা তরি তরকারি, হোটেল, ট্রি স্টোল, গ্যাস স্টেপের দোকান, রকমারি স্টোর, মাছ ও মাংসের দোকান, কাপড়ের দোকান, মোবাইলের দোকান, জুয়েলার্সের দোকান। এসব দোকানের কোনটিরই বৈধ ট্রেড লাইসেন্স ও কতৃপক্ষের ছাড়পত্র নেই। ক্যাম্পের অভ্যন্তরে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় বসানো বাজারগুলোতে ব্যবসা পরিচালনা করছে রোহিঙ্গা মাঝি থেকে শুরু করে আশ্রিত রোহিঙ্গারা। এই বাজারগুলোর কারণে ব্যবসা হারাচ্ছেন বলে অভিযোগ করেছেন স্থানীয় ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা।

থাইংখালী জামতলি বাজার কমিটির সভাপতি জামাল উদ্দিন সওদাগর বলেন, রোহিঙ্গাদের ব্যবসার কারণে আমরা কোণঠাসা হয়ে পড়েছি। আমাদের ব্যবসায়ীরা ক্ষুদ্ধ হয়ে উঠেছে। এভাবে চলতে পারে না। পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এম গফুর উদ্দিন চৌধুরী জানান, রোহিঙ্গারা কিভাবে প্রশাসনের সামনে ক্যাম্পে বাজার বসিয়ে দোকানে ব্যবসা পরিচালনা করছে তা আমার জানা নেই।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, রোহিঙ্গাদের ব্যবসা বাণিজ্য ও চাকরির সুযোগ দিলে আগামীতে প্রত্যাবাসনের ক্ষেত্রে বড় বাধা হয়ে দাঁড়াবে। কারণ রোহিঙ্গারা এসব সুযোগ সুবিধা পেলে মিয়ানমারে ফেরত যেতে রাজি হবে না।

উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নিকারুজ্জামান চৌধুরী জানান, রোহিঙ্গা ক্যাম্প গুলোতে গড়ে উঠা দোকান ও বাজারের ব্যাপারে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নিকট জানানো হয়েছে। উপরের নির্দেশ অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ