প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

এসআই বরখাস্ত, যমুনা সেতুতে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি : টাঙ্গাইলের বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্ব পাড়ে পুলিশকে চাঁদা না দেয়ায় বকুল নামের এক ট্রাক চালককে নির্মম আঘাত করা হয়। বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর ক্ষুব্ধ ট্রাক ও বাস শ্রমিকরা সকাল ৬টা থেকে ১০টা পর্যন্ত চার ঘন্টা সেতু সড়ক অবরোধ করে রাখে। শনিবার সকাল সাড়ে ৫টার দিকে মূলত এ ঘটনার সূত্রপাত হয়। সেতুর উভয় পাড়ে সৃষ্টি হয় দীর্ঘ যানজটের। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও শ্রমিক সংগঠনের নেতারা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন। পরে ওই পুলিশ সদস্যের সাময়িক বরখাস্ত ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির আশ্বাসে অবরোধ তুলে নেয় শ্রমিকরা। সকাল ১০টার দিকে আবার যান চলাচল শুরু হয়।

সরেজমিনে জানা যায়, বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্ব পাড়ে থানার এসআই নুরে আলমের নেতৃত্বে ভোর সাড়ে ৫টার দিকে একদল পুলিশ সদস্য দায়িত্ব পালন করছিলো। এ সময় নুরে আলম বকুল নামের এক ট্রাক চালকের কাছে ৫০০ টাকা চাঁদা দাবী করে। কিন্তু সে তা দিতে অস্বীকার করায় এসআই তাকে নির্মমভাবে আঘাত করে। এতে তার চোখের নীচে ফেটে রক্তক্ষরণ হয়। বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর ক্ষুব্ধ ট্রাক ও বাস শ্রমিকরা সকাল ৬টা থেকে ১০টা পর্যন্ত চার ঘন্টা সেতু সড়ক অবরোধ করে রাখে। শনিবার সকাল সাড়ে ৫টার দিকে মূলত এ ঘটনার সূত্রপাত হয়। সেতুর উভয় পাড়ে সৃষ্টি হয় দীর্ঘ যানজটের।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) শরীফুল আলম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আহাদুজ্জামান মিঞা, কালিহাতী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদুর রহমান মনিসহ অন্যান্য কর্মকর্তা ও টাঙ্গাইল জেলা শ্রমীক সংগঠনের সাধারন সম্পাদক বালা মিঞাসহ পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও শ্রমিক সংগঠনের নেতারা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন। পরে ওই পুলিশ সদস্যের সাময়িক বরখাস্ত ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির আশ্বাসে অবরোধ তুলে নেয় শ্রমিকরা।