প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

দেশের সবচেয়ে দীর্ঘতম রেলপথের উদ্বোধন হচ্ছে শনিবার

সুজন কৈরী: প্রথমবারের মতো ঢাকা থেকে পঞ্চগড় রুটে চালু হচ্ছে ট্রেন সার্ভিস। বাংলাদেশের দীর্ঘতম রেলপথ এটি। যার দূরত্ব ৬৩৯ কিলোমিটার। আজ শনিবার নতুন এই ট্রেন সার্ভিসের উদ্বোধন করা হবে।
রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ জানায়, শনিবার সকালে পঞ্চগড় থেকে ছেড়ে আসার মাধ্যমে এই ট্রেনের চলাচল শুরু হবে। ২৩টি স্টেশনে থামবে। দূরত্বের দিক থেকে এটি বাংলাদেশের দীর্ঘতম রেলপথ। পঞ্চগড় থেকে দ্রুতযান এক্সপ্রেস সকাল ৭টা ২০ মিনিটে ঢাকার উদ্দেশে রওয়ানা হবে। এরপর ৭টা ৫৮মিনিটে ঠাকুরগাঁও পৌঁছাবে। সকাল ৮টায় আবার ঠাকুরগাঁও থেকে ঢাকার উদ্দেশে ছাড়বে দ্রুতযান এক্সপ্রেস। আবার একতা এক্সপ্রেস রাত ৯টায় পঞ্চগড় ছেড়ে ঠাকুরগাঁওয়ে পৌঁছাবে রাত ৯টা ৩৮ মিনিটে। সেখান থেকে রাত ৯টা ৪০ মিনিটে দিনাজপুরের উদ্দেশে ছেড়ে যাবে। ট্রেন দুটি পঞ্চগড়-দিনাজপুরের মধ্যে নতুন সময়সূচি অনুযায়ী এবং দিনাজপুর-ঢাকার মধ্যে পুরোনো সময়সূচি অনুযায়ী চলাচল করবে। এতে দিনাজপুর-পঞ্চগড় রুটের সাঁটল ট্রেন বন্ধ হয়ে যাবে। ফলে কোনো সাপ্তাহিক বন্ধের দিন থাকবে না।
রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ জানায়, দ্রুতযান ট্রেনটি পঞ্চগড় রেলস্টেশন থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওনা হবে প্রতিদিন সকাল ৭টা ২০ মিনিটে। ১০ ঘণ্টা ৫০ মিনিট পর ট্রেনটি ঢাকায় পৌঁছাবে সন্ধ্যা ছয়টা ১০ মিনিটে। ঢাকা থেকে দ্রুতযান ছাড়বে প্রতিদিন রাত ৮টায় এবং পঞ্চগড় পৌঁছাবে সকাল ৬টা ৩৫ মিনিটে। একতা এক্সপ্রেস পঞ্চগড় থেকে প্রতিদিন রাত ৯টায় ছেড়ে ঢাকায় পৌঁছাবে পরদিন সকাল ৮টা ১০ মিনিটে। ঢাকা থেকে একতা এক্সপ্রেস ছাড়বে প্রতিদিন সকাল ১০টায় এবং পঞ্চগড় পৌঁছাবে রাত পৌনে ৯টায়। দ্রুতযান ও একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের বগি সংখ্যা মোট ১৩টি। দ্রুতযানে এক্সপ্রেসে ৯৪৪টি এবং একতায় ৮৯৪টি আসন রয়েছে। ট্রেন দুটির প্রতিটি এসি বার্থের ভাড়া ১ হাজার ৯৪২ টাকা, এসি চেয়ারের ভাড়া ১ হাজার ৫৩ টাকা, নন এসি বার্থের ভাড়া ১ হাজার ১৪৫ টাকা ও শোভন চেয়ারের ভাড়া ৫৫০ টাকা।
কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন ম্যানেজার সিতাংশু চক্রবর্তী জানান, ঢাকা-দিনাজপুরের মধ্যে চলাচলকারী দ্রুতযান এক্সপ্রেস এবং একতা এক্সপ্রেস ট্রেন একই ধরনের কোচ, কম্পোজিশনে লাল-সবুজ রংয়ে ইন্দোনেশিয়ান কোচ দিয়ে পরিচালিত হবে। ট্রেনগুলো তিনটি রেক দিয়ে চালানো হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ