প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শরীয়তপুর দুই আসনে এনামূল হক শামীমের মনোনয়নপত্র সংগ্রহ

আহমেদ জাফর : শরীয়তপুর দুই আসনের মনোনয়ন ফরম কিনেছেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীম।

শুক্রবার (৯ নভেম্বর) দুপুরে তার পক্ষে মনোনয়নপত্র সংগ্রহের জন্য শরীয়তপুর-২ (নড়িয়া-সখিপুর) আসনের আটশতাধিক নেতাকর্মী জড়ো হয় ধানমণ্ডি আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ের সামনে।

মনোনয়নপত্রের সংগ্রহের সময় অনেকর মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, শরীয়তপুর জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ওহাব বেপারী ও বীরমুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমান সিকদার, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা মাস্টার আবুল হাসেম দেওয়ান, এম এ কায়ূম পাইক, আলমগীর হোসেন, কোহিনুর সুলতানা দোলা, রওশন আরা, নড়িয়া উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান জাকির হোসেন, নড়িয়া, নাজমা মোস্তফা এবং পৌরসভার মেয়র শহিদুল ইসলাম বাবুরাড়ী।

শরীয়তপুর-২ (নড়িয়া-সখিপুর) আসনে আওয়ামী লীগের অনেকে মনোনয়ন প্রত্যাশী হলেও দুইজনের নাম জোরসোরে আলোচনায় রয়েছে। এ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য ও সাবেক ডেপুটি স্পিকার কর্ণেল অবঃ শওকত আলীর পুত্র খালেদ শওকত আলী এবং ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি, বর্তমান আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীমের নাম। এই দুইজন এলাকায় দলীয় বিভিন্ন কর্মস‚চিতে নিজেদের অস্তিত্বের জানান দিচ্ছে এবং জনগণের দ্বারে দ্বারে ঘুরে নিজের দলীয় মনোনয়নের পক্ষে জনমত তৈরির চেষ্টা করছেন তারা।

ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের স্থানীয় নেতা, জনসাধারন ও কর্মী সমর্থকদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, এই দুইজনের মধ্যে জনপ্রিয়তার দিক থেকে এগিয়ে রয়েছে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীম। ছাত্র জীবন থেকেই শামীম কেন্দ্রীয় এবং এলাকার রাজনীতিতে সক্রিয়। নড়িয়া ও সখিপুর থানার পদ্মা নদীর ভঙ্গন কবলিত মানুষের পাশে দাড়ানো থেকে শুরু করে এলাকার উন্নয়নে বেশ অবদান রেখেছেন তিনি।

নড়িয়া ও সখিপুর থানার জনমতের ভিত্তিতে এনামুল হক শামীম শলীয়তপুর-২ আসনের মনোনয়ন পাওয়া এবং নেতাকর্মীদের সমর্থকে এগিয়ে আছেন।

স্বাধীনতার পর থেকে এখন পর্যন্ত শুধু একক প্রার্থী হিসাবে একবার এই আসনে জিতেছিল বিএনপি। বাকিসব গুলো নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী জয়লাভ করে। প্রার্থী যেই হোক এলাকার মানুষ ভোট দেন নৌকা মার্কায়। তাই আওয়ামী লীগের ঘাঁটি হিসেবে পরিচিত শরীয়তপুর জেলা।

স্থানীয় রাজনৈতিক ব্যক্তিদের সঙ্গে কথা বলে তারা জানান, এই আসনে এনামুল হক শামীম নৌকার মনোনয়ন পেলে দল-মত নির্বিশেষে সবাই নৌকায় ভোট দেবে। বিশেষ করে তরুন প্রজন্ম এনামুল হক শামীমের দিকেই বেশি ঝুঁকছেন। শুধু দল দেখে নয় আমরা ব্যক্তির সততা আদর্শে দেখ ভোট দেবো। এনামুল হক শামীম যখন ছাত্রনেতা ছিলেন তখন থেকে সাধারন মানুষের পাশে ছিলেন। তার কাছ থেকে মানুষ খালি হাতে ফেরেনি।

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ডের এক সদস্যর মতে, এবার জাতীয় নির্বাচনে আওয়ামী লীগে একতৃতীয়াংশ তরুণ নেতাদের মনোনয়ন পাবেন।

এনামুল হক শামীম বলেন, আশা করি নেত্রী আমাকে মনোনয়ন দেবেন। আমি সেইভাবে কাজ করে যাচ্ছি। ক্ষমতা নয়, আমি চাই কর্মী হয়ে সাধারণ মানুষের পাশে দাড়াতে। নিজের নয়, জনগণের জন্যই আমি নমিনেশন চাইবো।