প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কোনো চক্রান্ত বাস্তবায়ন করতে দেয়া হবে না

মোশতাক আহমেদ রুহি : তফসিল ঘোষণা হওয়ায় দেশের মানুষ এখন নির্বাচনমুখী। মানুষ ভোট দেয়ার জন্য উদগ্রীব হয়ে আছে। আমরা আশা করি, জনগণ নৌকায়ই ভোট দেবে। ঐক্যফ্রন্ট যে দাবিগুলো করছে, এগুলো জনগণের দাবি নয়। এটি হচ্ছে, নির্বাচনকে বানচাল করার একটি চক্রান্ত, একটি ষড়যন্ত্র। তারা দাবি করছে, বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিতে হবে। সংসদ ভেঙ্গে দিতে হবে। নির্বাচন কমিশন পুর্নগঠন করা এবং দশ সদস্য বিশিষ্ট নির্বাচন কমিশন গঠন করতে হবে। তাদের এ দাবি যৌক্তিক নয়।

খালেদা জিয়াকে আওয়ামী লীগ সরকার মামলা দিয়ে কারাগারে পাঠায়নি। এই মামলা করেছিলো, ১/১১ এর সরকার। এখন আদালত যদি তাকে জামিন দেয় তাহলে, সে মুক্তি পেতে পারেন। আর আওয়ামী লীগ থেকে বলা হয়েছে, ঐক্যফ্রন্ট যে দাবিগুলো করেছে, তাদের দাবিগুলো হচ্ছে, অসাংবিধানিক। এবং এই দাবিগুলো যদি মানা হয় তাহলে সংবিধানে শূন্যতা তৈরি হবে। সেক্ষেত্রে তৃতীয় পক্ষ ঢুকে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। তাদের লক্ষ হলো, ১/১১ কে আবার দেশে ফিরিয়ে আনা। তাদের এ চক্রান্ত বাস্তবায়ন করতে দেয়া হবে না। আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, যে কোন মূল্যে নির্বাচন হবে, কোন শক্তিই ঠেকাতে পারবে না।

পরিচিতি: সাবেক সংসদ সদস্য, আওয়ামী লীগ/সম্পাদনা: ফাহিম আহমাদ বিজয়।