প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কুমিল্লায় টমসমব্রীজ এলাকায় শিবিরের গোপন বৈঠক, আটক-৬৩

মাহফুজ নান্টু, কুমিল্লা : কুমিল্লা টমসমব্রীজ এলাকায় ইবনে তায়মিয়া স্কুলের বিপরীতে ডা: আবদুল্লাহ তাহের ও শিবিরের নেতাদের মালিকানাধীন বাড়ীর মধ্যে জামায়াত শিবিরের শতাধিক নেতাকর্মী গোপন বৈঠক করছে। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে বৈঠকে আসা নেতাকর্মীরা পালিয়ে যায়। পরে রাতভর অভিযান চালিয়ে কুমিল্লা মহানগরসহ জেলার বিভিন্ন উপজেলা থেকে নাশকতার আশঙ্কার অভিযোগে এনে ৬৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে জেলার বিভিন্নস্থান থেকে তাদেরকে গ্রেফতার করে পুলিশ। বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করেন কুমিল্লা জেলা পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম।

জানাযায়, নগরীরর টমসমব্রীজ এলাকায় অবস্থিত ইবনে তায়মিয়া স্কুল এ্যান্ড কলেজের বিপরীতের গলির জামায়াতের কেন্দ্রীয় নেতা ডা:আবদুল্লাহ মো:তাহেরের মালিকানাধীন বাড়ীর ভেতরে সেমিনার কক্ষ বানিয়ে হাল্কা সাউন্ড সিস্টেমসহ সভা শুরু করে জামায়াত শিবিরের নেতাকর্মীরা। এমন সময় সংবাদের ভিত্তিতে গোয়েন্দা পুলিশের সদস্যরা সভাস্থলে গেলে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে শিবিরের নেতাকর্মীরা পালিয়ে যায়। পরে পুলিশ বাড়িটিতে অভিযান চালিয়ে ধর্মীয় উস্কানীমূলক সহ¯্রাধিক জিহাদী বই, কম্পিউটারসহ নাশকতার পরিকল্পনা বাস্তবায়নের জন্য বাড়ির ভেতরে সংরক্ষন করা বিভিন্ন আলামত সংগ্রহ করে।

কুমিল্লা জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার্স ইনচার্জ (ওসি) নাসির উদ্দিন মৃধা জানান, টমসমব্রীজ এলাকায় জামায়েত শিবিরের মালিকানাধীন নাম ঠিকানা বিহীন একটি বাড়ীর নিচ তলায় সেমিনার কক্ষে সভা করঠিছলো। এমন খবর পেয়ে ডিএসবির অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আজিমুল এহসান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তানভীর সালেহীন ইমন(সদর সার্কেল) এর স্যারের নেতৃত্বে গোয়েন্দা পুলিশের একাধিক টিম এবং কোতয়ালী মডেল থানার অফিসার্স ইনচার্জ (ওসি) আবু ছালাম মিয়া নেতৃত্বে পর্যাপ্ত পুলিশ ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে শিবিরের নেতাকর্মীরা পালিয়ে যায়। তবে পুলিশ সদস্যরা চাঁদপুর কচুয়া উপজেলার সোহাগ নামে একজনকে আটক করতে সক্ষম হয়। পরে পুলিশ সদস্যরা বাড়িটিতে অভিযান চালিয়ে সহ¯্রাধিক জিহাদী বই,কম্পিউটার অন্যান্য ইলেক্ট্রনিকস যন্ত্রপাতিসহ নাশকতার জন্য পরিকল্পনার বিভিন্ন আলামত সংগ্রহ করে থানায় নিয়ে আসে।

পরে গতকাল বৃহস্পতিবার রাতভর জেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালায় পুলিশ সদস্যরা। এ সময় ৬৩জনকে আটক করা হয়। আটককৃতদের মধ্যে দেবিদ্বার উপজেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দিনকেও গ্রেফতার করা হয়।

রাতের অভিযান ও আটকের বিষয়ে কুমিল্লার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মোঃ আজিমুল আহসান জানান, শান্তি-শৃঙ্খলা ও জনসাধারণের নিরাপত্তা নিশ্চিতের লক্ষে বিপদগামীদের গ্রেফতার করছে পুলিশ। তারই ধারাবাহীকতায় বৃহস্পতিবার রাতে জেলার ১৭ উপজেলার বিভিন্ন স্থান থেকে নাশকতার আশঙ্কার অভিযোগে ৬৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আজ শুক্রবার গ্রেফতারকৃতদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হবে।