প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণায় এগিয়ে রোকেয়া প্রাচী

আবু সুফিয়ান রতন : আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থী হতে দৌঁড়ঝাপ শুরু করেছেন জনপ্রিয় অভিনেত্রী রোকেয়া প্রাচী। ফেনী-৩ (সোনাগাজী-দাগনভূঞা) আসনে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী তিনি। এছাড়াও একই আসনে আরেক জনপ্রিয় অভিনেত্রী ই-কমার্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ এর (ই-ক্যাব) প্রেসিডেন্ট শমী কায়সারসহ অন্তত ডজনখানেক প্রার্থী মনোনয়নের জন্য জোর তদবির চালিয়ে যাচ্ছেন বলে জানা গেছে।

জানা গেছে, সভা-সমাবেশ, পোষ্টার ও ব্যানারসহ নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণায় এগিয়ে মহিলা আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক রোকেয়া প্রাচী। তিনি কয়েক বছর ধরে ফেনীতে যোগাযোগ বৃদ্ধি করেছেন। রাজনৈতিক সভা-সমাবেশ ছাড়াও নির্বাচনী এলাকায় উঠান বৈঠক, নিজের স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনে ‘স্বপ্ন সাজাই’ এর মাধ্যমে জনসচেতনা সৃষ্টিসহ সামাজিক কর্মকান্ডে অপরাপর প্রার্থীদের সাথে নিজেকে তুলে ধরেছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রাপ্ত এ অভিনেত্রী। এছাড়া ফেনী জেলা শ্রমিক লীগ রোকেয়া প্রাচীকে ইতোমধ্যে ফেনী-৩ আসনের সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে সমর্থন দিয়েছে।

এ প্রসঙ্গে রোকেয়া প্রাচী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে তৃণমূলের জনগণের কাছে এসে কাজ করছি। আশা করছি প্রধানমন্ত্রী আমাকে এ আসনে মনোনয়ন দিয়ে এলাকার সেবা করার সুযোগ করে দেবেন। মহাজোটের প্রার্থী হিসেবে আগামী নির্বাচনে এ আসন থেকে নির্বাচন করতে চান তিনি। ভালোবাসা দিয়ে মানুষের মন জয় করা যায়, ভোট টানা যায়। মানুষের হৃদয় জয় করে নৌকার পক্ষে ভোট টানুন। উন্নয়নের ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে হলে যুব সমাজকে এগিয়ে আসতে হবে। এখন সাধারণ মানুষও অনেক সচেতন। দল ও প্রার্থীদের বিষয়ে সঠিক ধারণা নিয়ে মানুষের কাছে যেতে হবে। এতে মানুষ ভালো সাড়া দেবে।

ফেনী-৩ (সোনাগাজী-দাগনভূঞা) আসনে আওয়ামী লীগে এবার বর্তমান সংসদ সদস্য হাজী রহিম উল্যাহ, যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য আবুল বাশার, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সম্পাদক ও এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের চেয়ারম্যান নিজাম চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও মার্কেন্টাইল ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যান আক্রাম হোসেন হুমায়ুন, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের উপকমিটির সাবেক সহ-সম্পাদক ও সাবেক ছাত্রনেতা জহির উদ্দিন মাহমুদ চৌধুরী লিপটন, সোনাগাজী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জেড এম কামরুল আনাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও দাগনভূঞা উপজেলা চেয়ারম্যান দিদারুল কবির রতন ও পৌর মেয়র এডভোকেট রফিকুল ইসলাম খোকন মনোনয়ন পেতে লবিং চালিয়ে যাচ্ছেন বলে জানা গেছে।

এছাড়া সাবেক সেনা কর্মকর্তা মাসুদ উদ্দিন চৌধুরী, ফেনী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ফেনী সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুর রহমানও এ আসনে দলের মনোনয়ন চান বলে দলীয় সূত্র জানিয়েছে।

উল্লেখ্য, ফেনী- ৩ আসনটি বিএনপির দূর্গ হিসেবে পরিচিত, এখানে আওয়ামী লীগের আসন বরাবরই নড়বড়ে। এই আসনে ১৯৯১ সালে অনুষ্ঠিত ৫ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির মাহাবুবুল আলম, ১৯৯৬ সালের ৭ম এবং ২০০১ সালের ৮ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির মোশারফ হোসেন এবং ২০০৮ সালের ৯ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও বিএনপির প্রার্থী মুহাম্মদ মোশাররফ হোসেন জয়লাভ করেন।

মুহাম্মদ মোশাররফ হোসেন সেবার ১ লাখ ৩৪ হাজার ৯৩৯ ভোট পান আর তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের মো: আবুল বাশার ৯৩ হাজার ৬৩০ ভোট পেয়ে প্রায় সাড়ে ৪২ হাজার ভোটের ব্যবধানে পরাজিত হন। বর্তমানে এই আসন থেকে নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি স্বতন্ত্র প্রার্থী রহিম উল্লাহ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ