প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

গফরগাঁওয়ে প্রতিবন্ধীকে ধর্ষণ, মামলা

আজহারুল হক, ময়মনসিংহ (আঞ্চলিক): ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলায় এক শারীরিক প্রতিবন্ধী কিশোরী (১৩) ধর্ষিত হয়েছেন। উপজেলার সালটিয়া ইউনিয়নের রৌহা পূর্বপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ওই প্রতিবন্ধীর বাবা আঃ সাত্তার রোববার রাত ১০টার দিকে গফরগাঁও থানায় একটি মামলা করেছেন।

এলাকাবাসী, পুলিশ ও মামলা সূত্রে জানা গেছে, ওই প্রতিবন্ধীর বাবা একজন হত দরিদ্র দিন মজুর। গত ২ নভেম্বর ধর্ষিত প্রতিবন্ধীর বাবা আঃ সাত্তার ময়মনসিংহে সার্কিট হাউজ মাঠে প্রধানমন্ত্রীর জনসভায় যোগ দিতে সকালে বাড়ি থেকে বের হয়ে যান। তার মা রুপালী আক্তার দুপুর ১টার দিকে প্রতিদিনের মতো বাড়ির সামান্য দূরে ব্রহ্মপুত্র নদের পাড়ে লাউক্ষেত দেখতে যান। এ সুযোগে একই এলাকার লম্পট তিন সন্তানের জনক রতন মিয়া (৪১) প্রতিবন্ধী কিশোরীকে (পপি আক্তার) একা পেয়ে ধর্ষণ করেন। পরে প্রতিবন্ধীকে কিশোরীকে ভয়ভীতির পাশাপাশি এ ঘটনা কাউকে জানালে জীবনে মেরে ফেলার হুমকি ওই লম্পট। ঘটনার কিছুক্ষন পর ধর্ষিতার মা বাড়িতে বাড়িতে এলে বিষয়টি তার মাকে জানায়। পরে বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হয়ে যায়।

এ নিয়ে একাধিকবার গ্রাম্য সালিশ বসলেও তাতে ধর্ষক হাজির হয়নি। ফলে নিরুপায় হয়ে ধর্ষিতার বাবা বাদি হয়ে রোববার রাতে গফরগাঁও থানায় লম্পট রতনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেছেন।

ধর্ষিতার মা-বাবা অভিযোগ করে বলেন, ‘আমার মেয়ে প্রতিবন্ধী । তাকে একা পেয়ে মুখ চেপে ধরে ধর্ষণ করা হয়েছে। আমরা এর বিচার চাই।’
থানার ওসি মনজুর রহমান বলেন, এ ঘটনায় রাতে মামলা হয়েছে। ভিকটিমের ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হবে। পাশাপাশি ধর্ষককে ধরতে পুলিশ কাজ করছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ