প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

খাসোগজির দেহ ফেরত চান তার ছেলে

আব্দুর রাজ্জাক: সৌদি ভিন্নমতালম্বী সাংবাদিক জামাল খাসোগজির মরদেহ ফেরত চেয়েছেন তার ছেলে সালাহ ও আব্দুল্লাহ খাসোগজি। তারা সৌদি আরবে এসে পিতার মরদেহ সৎকার করতে চান। এটি কোন সাধারণ মৃত্যু নয় বলেও তারা অভিযোগ করেছেন।

সালাহ ও আব্দুল্লাহ বলেন, ‘পিতার দেহ ছাড়া নিজেদের শান্তনা দিতে পারছিনা এবং আমাদের পরিবারও এটি মেনে নিতে পারছেনা। সৌদি আরবের মদিনায় অবস্থিত জান্নাতুলবাকিতে পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের সাথে তাকে কবরস্থ করতে চাই। আমরা রিয়াদ কর্তৃপক্ষের সাথে এ ব্যাপারে আলোচনা করেছি এমনকি খুব শীঘ্রই আমরা পিতার দেহ ফেরত পাব বলে আশা করছি।’

গত ২৪ অক্টোবর রিয়াদে সৌদি বাদশা সালমান ও ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সাথে খাসোগজি পুত্রদ্বয়ের স্বাক্ষাত হয়। খাসোগজিকে হত্যা করা হয়েছে এবং তার হত্যার সাথে জড়িতদের ন্যায়বিচারের আওতায় আনা হবে বলে বাদশা সালমান প্রতিশ্রুতি দেন। এর একদিন পরেই তারা ওয়াশিংটনের উদ্দেশে রিয়াদ ত্যাগ করেন বলে খাসোগজির পরিবারের কেউ প্রথমবারের মত সিএনএনকে দেয়া স্বাক্ষাতকারে জানান।

এদিকে আল-জাজিরা জানিয়েছে, গত ২ অক্টোবর ইস্তাম্বুলে সৌদি কনস্যুলেটে নিহত খাসোগজির দেহ টুকরো টুকরো করে অন্তত ৫টি স্যুটকেসে করে সৌদি আরব নেয়া হয়েছে। প্রথমে স্যুটকেসগুলো কনস্যুলেটের পাশেই অবস্থিত পরিচালকের বাসায় রাখা হয়। এমনকি এই কাজটি সম্পন্ন করেছে মাহের মাতরেব, সালাহ তুবেগি ও থা’র আল-হারবি নামে তিনজন ব্যক্তি যারা সৌদি থেকে আগত ১৫ সদস্যের দলের অন্তর্ভুক্ত ছিল। রয়টার্স

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ