Skip to main content

সংলাপে সন্তুষ্টি না থাকলেও হতাশা নেই ঐক্যফ্রন্টে

শাহানুজ্জামান টিটু : সুষ্ঠু নিরপেক্ষ নির্বাচনের বিষয়ে সরকার ইতিবাচক না হলে সংলাপ কোনো ফল নিয়ে আসবে না বলে মনে করেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের নেতারা। তারা মনে করেন সংলাপ এখনো চলমান। যেটা হয়েছে তাতে সন্তুষ্টি না থাকলেও হতাশ নন তারা। আবার কেউ এ সংলাপে কিছু হবে না বলেও মন্তব্য করেছেন। এসবের মধ্যে সংকট নিরসনে দ্রুততম সময়ে যদি সমাধানে না পৌঁছানো যায়, তখন দাবি আদায়ে বিকল্প পথে হাঁটবে ঐক্যফ্রন্ট। সংলাপে অংশ নেওয়া নেতাদের মধ্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. মঈন খান বলেন, এমন একটা পরিস্থিতির মধ্যে আমরা চলে গিয়েছিলাম সরকার ও বিরোধী দলের মধ্যে মুখ দেখাদেখি ছিলো না। সেখানে দুটো পক্ষ সামনাসামনি বসে দীর্ঘ সময় যে সমস্যাগুলো আলোচনা করেছেন আমি মনে করি আজকে রাজনীতিতে সাংঘর্ষিক পরিস্থিতি থেকে বের হতে কিছুটা হলেও অগ্রগতি হয়েছে। আর ঐক্যফ্র্যন্টের নেতা মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, ড. কামাল হোসেন তো বলেছেন কিছ’ পাইনি আমরা। উনি একটা সৌজন্য দেখিয়ে বলেছেন, ভালো আলোচনা হয়েছে। আসল কথা হচ্ছে সরকার যদি ইতিবাচক না থাকে তাহলে সংলাপে ফল আসবে না। সংলাপ নিয়ে বিএনপিসহ ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের মধ্যে খুব একটা মতপার্থক্য না থাকলেও অধিকাংশই মনে করেন আর যাইহোক দীর্ঘদিন ধরে জমাট বেঁধে থাকা রাজনীতির বরফ এই সংলাপের মধ্য দিয়ে গলতে শুরু করেছে। তারা আশাবাদী দ্বিতীয় দফায় যে সংলাপ হবে সেখানে হয়তবা স্বস্তির দেখা মিলবে। তবে এজন্য সরকার ও বিরোধী দলকে কিছু কিছু জায়গায় ছাড় দেওয়ার মানসিকতা থাকতে হবে। ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর মতে, বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর তার অসন্তুষ্টির কথা বলেছেন। তিনি পুরোপুরি সন্তুষ্ট হতে পারেননি। তার অবস্থান থেকে সেটা তিনি বলতে পারেন। কিন্তু কেউ তো বলে নাই ব্যার্থ হয়েছি। কেউ বলে নাই হতাশ হয়েছি। সুতরাং আমাদেরকে বিষয়টি সেভাবে দেখতে হবে। সংলাপে কোনো অর্জন নেই তা নয়। আমাদের কিছু অর্জন হয়েছে। সংলাপে সবচেয়ে বড় যে কথা রাজনীতির বরফ গলেছে। বাকি যে সমস্যা রয়েছে আশা করছি দ্বিতীয় দফা সংলাপে যদি সরকার আন্তরিক হয় তাহলে তার সমাধান হবে। আর বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়ের মতে, সংলাপে কি হবে না হবে তা জেনেই এতে অংশ নিয়েছে ঐক্যফ্রন্ট। যারা সংলাপে অংশ নিয়েছেন তারা অত্যন্ত অভিজ্ঞতা সম্পন্ন মানুষ। তারাও কিন্তু জেনেশুনে গেছেন যে এখান থেকে কিছ’ পাওয়া যাবে না। তিনি বলেন, রাজপথে আন্দোলন সংগ্রামের মধ্য দিয়েই গণতন্ত্র উদ্ধার করার বিকল্প কোনো পথ জাতীয়তাবাদী শক্তির কাছে আর খোলা নাই।  সম্পাদনা : মাহবুব আলম

অন্যান্য সংবাদ