প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

প্রীতির সঙ্গে দ্বন্দ্ব, পাঞ্জাব ছাড়লেন শেবাগ

স্পোর্টস ডেস্ক: আইপিএলের দল কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব থেকে নিজেকে সরিয়ে নিলেন ভারতের সাবেক ওপেনার বিরেন্দর শেওয়াগ। পাঞ্জাবে প্রথমে ক্রিকেটার হিসেবে খেললেও ভারতীয় অভিনেত্রী প্রীতি জিনতার দলটির মেন্টর হিসেবে পরে কাজ করেছিলেন শেওয়াগ। এছাড়া, দলটির ক্রিকেট সংক্রান্ত ডিরেক্টরের পদেও ছিলেন তিনি।

নিজের টুইটারে শেওয়াগ জানান, ‘সব ভালো কিছুরই শেষ আছে। কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের সঙ্গে ক্রিকেটার হিসেবে দু’বছর ও মেন্টর হিসেবে তিন বছর খুব ভালো সময় কাটিয়েছি। এবার সেই সম্পর্কের ইতি টানতে হচ্ছে। দলটির উজ্জ্বল ভবিষ্যতের জন্য শুভেচ্ছা জানাই।’

ঠিক কী কারণে পাঞ্জাবের দায়িত্ব ছেড়েছেন শেওয়াগ সেটি জানাননি। তবে, ভারতীয় গণমাধ্যমে জানানো হচ্ছে, দলের আংশিক মালিক প্রীতি জিনতার সঙ্গে তার সম্পর্ক মোটেই ভালো যাচ্ছে না। ২০১৬ সালের আসরে পাঞ্জাবের মেন্টর থাকাকালীন দলটি আট নম্বরে থেকে টুর্নামেন্ট শেষ করেছিল। পরের বার পাঁচে থেকে টুর্নামেন্ট শেষ করতে হয়েছিল পাঞ্জাবকে। এরপর থেকেই প্রীতি জিনতার সঙ্গে সম্পর্ক খারাপের দিকে যায় শেওয়াগের। গতবার রাজস্থান রয়্যালসের কাছে পাঞ্জাবের কাছে হারের পর প্রীতি জিনতা ও শেওয়াগের মধ্যে বাগ্যুদ্ধের খবর রটেছিল।

রাজস্থান রয়্যালসের কাছে হারের জন্য প্রকাশ্যে শেওয়াগের ‘ট্যাকটিস’কে দুষেছেন প্রীতি। একাধিকবার কথার লড়াইয়ে জড়িয়ে পড়েন দুজন। দলের একাদশ নিয়ে শেওয়াগের ‘অপ্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা’কে দায়ী করেছিলেন ভারতীয় এই অভিনেত্রী। অবশেষে দল ছাড়ার সিদ্ধান্তটি জানিয়ে দিলেন শেওয়াগ।

আইপিএলের শুরু থেকে দিল্লি ডেয়ারডেভিলসের হয়ে খেলেছিলেন শেওয়াগ। ২০১৪ সালের আসরে তিনি পাঞ্জাবে যোগ দেন। ২০১৬ থেকে তিনি ছিলেন দলের মেন্টর ও ডিরেক্টর। পাঞ্জাবের হয়ে ২৫ ম্যাচ খেলে ভারতের সাবেক এই ওপেনার করেন ৫৫৪ রান।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ