প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

যানজটের কারণে নাকাল নগরবাসী

মোঃ ইউসুফ আলী বাচ্চু: সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ‘শোকরানা মাহফিল’ এ অংশ নিতে আসা সারাদেশ থেকে কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের ঢলে ভোগান্তিতে ফেলেছে রাজধানীর বাসিন্দাদের। সপ্তাহের প্রথম কার্য দিবসেই রাজধানী জুড়ে সৃষ্টি হয়েছে তীব্র যানজট। একদিকে সপ্তাহের প্রথম দিন হিসেবে অফিসগামী মানুষের চাপ, অন্যদিকে এই শুকরানা মাহফিল। যানজটের কবলে পড়ে রাজপথে সব ধরনের বাহনের চলছে ধীরগতিতে।

কোথাও কোথাও ঘণ্টার পর ঘন্টা দাঁড়িয়ে থাকলেও সেগুলো নড়াচড়া করতে পারছে না। ফলে দুর্ভোগে নাকাল হচ্ছেন জরুরি কাজে বের হওয়া মানুষ। রোববার সকাল ৮থেকে আল হাইআতুল উলয়া লিল-জামি’আতিল কওমিয়া বাংলাদেশের উদ্যোগে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে শুরু হয়েছে শোকরানা মাহফিল। অনুষ্ঠানটিতে অংশ নিতে শনিবার (৩ নভেম্বর) রাত থেকে দেশব্যাপী কওমি মাদরাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা আসতে শুরু করেন রাজধানীতে।

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) পক্ষ থেকে শুক্রবার ট্রাফিক নির্দেশনায় বলা হয়, অনুষ্ঠানকে ঘিরে শাহবাগ ও মৎস ভবন এলাকার কয়েকটি সড়ক জনসাধারণের জন্য বন্ধ থাকবে। সেই সঙ্গে বাংলামোটর, হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টাল, শাহাবাগ, কাঁটাবন, নীলক্ষেত, পলাশী, বকশিবাজার, চাঁনখারপুল, গোলাপ শাহ মাজার, জিরো পয়েন্ট, পল্টন, কাকরাইল চার্চ, অফিসার্স ক্লাব, মিন্টো রোড ক্রসিংগুলো থেকে গাড়ি ডাইভারশন করা হয়েছে।

এছাড়া বেশ কিছু সড়ক ইন্টারসেকশন ডাইভারশন হতে পারে বলেও ডিএমপির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে। ফলে রোববার ভোর থেকেই এসব সড়কে চলাচলকারী সকল গণপরিবহনকে পড়তে হয়েছে বিপাকে। এসব রুটে চলাচলকারী গণপরিবহন অন্য রুটে চলাচল করতে গিয়ে সৃষ্টি হয়েছে তীব্র যানজট। কোথাও কোথাও যানজট তীব্র থেকে তীব্রতর হচ্ছে। আর যানজটের প্রভাব ছড়িয়ে পড়ছে সড়কের পাশের অলিগলিগুলোতেও। সকাল থেকেই মৎসভবন থেকে মিন্টো রোড ও কাকরাইলের সড়কগুলোতে ঘন্টারপর ঘন্টা গণপরিবহনকে সড়কে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়। সেই সঙ্গে এ যানজট বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ছড়িয়ে পড়েছে রাজধানীর অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলোতেও।

শাহবাগ থেকে কাওরান বাজার হয়ে ফার্মগেট, বিজয় স্মরণী, মিরপুর ও সাইন্সল্যাব হয়ে নিউ মার্কেট, মোহাম্মদপুর এবং ধানমন্ডিগামী সড়ক গুলোতে যানজটের কবলে পড়েছেন সাধারণ মানুষ। একই অবস্থা মহাখালী ও রামপুরা সড়কেও। দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষার পরও যানজট না কমায় অনেকে পায়ে হেঁটে রওনা দিয়েছেন নিজেদের গন্তব্যে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত