প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আমতলীতে গৃহবধু ধর্ষণকারী গ্রেফতার

মোঃ জয়নুল আবেদীন, আমতলী (বরগুনা) : বরগুনার আমতলী পৌর শহরের খোন্তাকাটা এলাকার দু’সন্তানের জননী গৃহবধুকে (২৮) বখাটে মাহবুব মেলকার জোরপূর্বক ধর্ষণ করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় শুক্রবার রাতে আমতলী থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ ধর্ষণকারী মাহবুব মেলকারকে ওই রাতেই গ্রেফতার করেছে। শনিবার দুপুরে তাকে আমতলী সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে প্রেরন করেছে পুলিশ।

জানাগেছে, আমতলী পৌর শহরের খোন্তাকাটা এলাকায় স্বামী পরিত্যাক্তা গৃহবধু দু’সন্তানকে নিয়ে বসবাস করে আসছে। ওইখানে একটি ভাড়াবাসা থেকে দর্জির কাজ করে। দীর্ঘদিন ধরে গৃহবধুকে সন্ত্রাসী ও বখাটে মাহবুব মেলকার উত্যক্ত ও কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছে। তার কুপ্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় বখাটে মাহবুব গৃহবধুকে বিভিন্ন সময় হুমকি দেয়। গত সোমবার রাতে মাহবুব গৃহবধুর কাষ্টমার পরিচয় দিয়ে দরজা খুলতে বলে। গৃহবধু দরজা খুলে দিলেই মাহবুব গৃহবধুকে জোড়পূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় গৃহবধুর ডাক চিৎকারে লোকজন ছুটে আসলে ধর্ষণকারী মাহবুব পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় শুক্রবার রাতে ধর্ষিতা গৃহবধু বাদী হয়ে আমতলী থানায় মামলা দায়ের করেন। পুলিশ ওই দিন রাতে ধর্ষণকারী মাহবুবকে গ্রেফতার করেছে। শনিবার দুপুরে তাকে পুলিশ আমতলী সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করেছে। আদালতের মাধ্যমে তাকে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ ধর্ষিতা গৃহবধুকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে।

গৃহবধু জানান, বখাটে মাহবুব দীর্ঘদিন ধরে আমাকে উত্যক্ত ও কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিল। আমি তার কু-প্রস্তাবে রাজি হয়নি। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে মাহবুব আমাকে জোড়পূর্বক ধর্ষণ করেছে। আমি এ ঘটনার বিচার চাই।

আমতলী থানার ওসি মোঃ আলাউদ্দিন মিলন বলেন, আসামী মাহবুব ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছে। আসামীকে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ