প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সংলাপে সরকারের একগুঁয়ে মনোভাব অশনিসংকেত

কালের কন্ঠ : বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবীর রিজভী বলেছেন, জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সঙ্গে সংলাপে সরকারের যে একগুঁয়ে মনোভাব তা গণতন্ত্র ও সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য বড় ধরনের অশনি সংকেত। সংলাপের প্রস্তাবে মানুষের মনে যে আশাবাদ জেগেছিল, সংলাপ শেষে সেই আশার মুকুল ঝরতে শুরু করেছে।

নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে গতকাল শুক্রবার আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে রিজভী এসব কথা বলেন। সাত দফা দাবিতে আগামী ৬ নভেম্বর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট সমাবেশ করতে চায় বলেও জানান রিজভী।

রিজভী বলেন, সাত দফা দাবির প্রতি সাড়া না দেওয়ার আওয়ামী অনড়তায় সুষ্ঠু নির্বাচনের অগ্রগতি তিমিরাচ্ছন্ন হলো। সংলাপের পরও বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার বন্ধ হয়নি। বৃহস্পতিবার রাতে সংলাপ শেষ হওয়ার পরপরই টাঙ্গাইল জেলা ছাত্রদলের সভাপতি সালেহ মোহাম্মদ ইথেনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সরকার অনমনীয় মনোভাব দেখাতে থাকলে সাত দফা দাবি রাজপথেই আদায় করতে হবে।

বিএনপির এই মুখপাত্র বলেন, সরকারের যদি বোধোদয় হয়, যদি সুষ্ঠু নিরপেক্ষ নির্বাচন করার ব্যাপারে আন্তরিকতা থাকে, যদি দেশকে বিভেদ ও বিভাজনের দিকে ঠেলে দিতে না চায়, তাহলে আবার তারা বসবে। বসে এমন একটা ঐকমত্য তৈরি করবে, যেখানে ভোটাররা কেন্দ্রে নির্ভয়ে যেতে পারবে এবং অবশ্যই সেটা নির্দলীয় সরকারের অধীনে হবে। অবশ্যই দেশনেত্রী খালেদা জিয়ার মুক্তি নিশ্চিত করতে হবে—এ ব্যাপারে আমরা আপসহীন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সংলাপের পর ঢাকার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জনসভার কর্মসূচি দিয়েছে ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। ঐক্যফ্রন্টের পক্ষে রিজভী জানান, আগামী ৬ নভেম্বর জনসভা করার জন্য ইতিমধ্যে অনুমতি চেয়েছেন তাঁরা। এ জন্য প্রয়োজনীয় দাপ্তরিক কাজ সম্পন্ন করেছেন। সোহরাওয়ার্দী উদ্যান কর্তৃপক্ষের কাছে চিঠি দিয়েছেন, পুলিশের কাছেও চিঠি দিয়েছেন। গণপূর্ত মন্ত্রণালয় তাদের বলেছে, পুলিশের অনুমতি পেলে তাদের কোনো আপত্তি নেই।

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের এই জনসভা সামনে রেখে আজ শনিবার সকালে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে যৌথ সভা হবে বলে জানান রিজভী।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়াকে কারাগারে রেখে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করা হবে আত্মঘাতী। দেশকে গণতন্ত্রমুখী করতে সুষ্ঠু নির্বাচনের বিকল্প নেই। আর নিরপেক্ষ সরকার ছাড়া নির্বাচন করা হবে মৃত্যুকূপে ঝাঁপ দেওয়া।

সংবাদ সম্মেলনে বিএনপি নেতা আবুল খায়ের ভুঁইয়া, আবদুস সালাম, আবদুস সালাম আজাদ, মুনির হোসেন, আবেদ রাজা, সাইফুল ইসলাম পটু প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ