Skip to main content

চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৫ করার দাবি

মো. ইউসুফ আলী বাচ্চু: সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ন্যূনতম ৩৫ বছর করার দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ ছাত্র পরিষদ। শুক্রবার ২ অ‌ক্টোবর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আয়োজিত এক মানববন্ধনে এই দাবি জানানো হয়। মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, আমরা উচ্চশিক্ষিত তরুণ সমাজ আজ সর্বোচ্চ শিক্ষা শেষে পরিবার,সমাজ ও দেশের সম্পদ হওয়ার পরিবর্তে বোঝা হয়ে পড়েছি। কারণ আমরা আমাদের অর্জিতবিদ্যা আইনের মারপ্যাচে সীমাবদ্ধ সুযোগের কাজে পরাজত হচ্ছে। নানা প্রতিবন্ধকতাকে জয় করে গ্র‍্যাজুয়েশন শেষে অর্জিত বিদ্যা দেশ ও জাতির কল্যাণে কাজে লাগানোর পূর্বে স্বপ্নীল ভোর অন্ধকারে ঢেকে যাচ্ছে চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩০ বছরে সীমাবদ্ধ থাকার কারনে। তারা বলেন, আইনকে যুগোপযোগী রাখার জন্য সময়ের সময়ে পরিবর্তন, পরিবর্ধন,সংযোজন, বিয়োজন করার প্রয়োজন পড়ে।চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা এমনই একটি আইন যা এখন পরিবর্তনের মাধ্যমে ৩০ থেকে বাড়িয়ে ৩৫ বছরে উন্নীত করা আবশ্যক হয়ে পড়েছে। শিক্ষা জীবনের এই দীর্ঘ সময়ে অনেক কষ্টে অর্জিত জ্ঞান, ব্যক্তি,পরিবার, সমাজ ও সর্বোপরি রাষ্ট্রের কল্যাণ ও উন্নয়নে কাজে লাগানোর স্বপ্ন প্রতিটি শিক্ষার্থী তাদের অন্তরে লালন করে থাকে।কিন্তু নানা ধরনের অনাকাঙ্ক্ষিত সমস্যা তাদের সেই লালিত স্বপ্ন পূরণের পথে বাধা হয়ে দাঁড়ায়।এগুলোর মধ্যে প্রধান একটি সমস্যা হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩০ বছরে সীমাবদ্ধ থাকা। মানববন্ধনে আয়োজক সংগঠনের সভাপতি আল আমিন রাজু, সাধারণ সম্পাদক আমিরুল ইসলাম সেলিমসহ বাংলাদেশ ছাত্র পরিষদের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।