Skip to main content

জুড়ীতে প্রেমিকার বাড়িতে প্রেমিক খুন

স্বপন কুমার দেব, মৌলভীবাজার : মৌলভীবাজারের জুড়ী থানার পূর্বজুড়ী ইউনিয়নের আতিয়াবাগ চা বাগানে গতবুধবার রাত ১ টার দিকে প্রেমিকার বাড়িতে এসে তার ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে প্রেমিক ওপেন্দ্র রুদ্র পাল (৩১) খুন হয়েছেন। এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে প্রেমিকাসহ ৫ জনকে আটক করেছে জুড়ি থানা পুলিশ। যদিও আটককৃতরা এখনও খুনের বিষয়টি স্বীকার করছে না। আতিয়াবাগ চা বাগানের শ্রমিক ওপেন্দ্র রুদ্র পাল (৩১) একই এলাকার বিধবা লক্ষী রায় (২০) এর বাড়িতে গভীর রাতে যায়। লক্ষীর ভাই সুমন রায় বিষয়টি টের পেয়ে চোর চোর বলে চিৎকার করলে বড় ভাই অজয় রায় ছুরি নিয়ে ধাওয়া করে। এক পর্যায়ে ওপেন্দ্র্র রুদ্র পালের পায়ে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায় অজয় রায়। এদিকে হাসপাতালে নেয়ার পথে অত্যধিক রক্তক্ষরণে মারা যায় আহত ওপেন্দ্র রুদ্র পাল। স্থানীয় লোকজন জানান, ওপেন্দ্র রুদ্র পালের সাথে বেশ কিছুদিন থেকে লক্ষী রায়ের মন দেয়া নেয়া চলছিলো। এরই সুত্র ধরে ওপেন্দ্র রুদ্র পালের যাতায়াত ছিলো লক্ষীদের বাড়িতে। জুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মো. জাহাঙ্গীর হোসেনের নেতৃত্বে রাতভর অভিযান চালিয়ে প্রেমিকা লক্ষী রায়, তার ২ ভাই সুমন রায় ও অজয় রায় এবং সহায়তাকারী ২ জনসহ মোট ৫ জনকে আটক করেছে। কুলাউড়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আবু ইউছুফ জানান, নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় নিহত ওপেন্দ্র রুদ্র পালের কাকা মনোরঞ্জন রুদ্র পাল বাদি হয়ে ৫ জনকে আাসমী করে মামলা দায়ের করেছে।