প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

খিলগাঁওয়ে গৃহকর্মীকে নির্যাতনের অভিযোগে গৃহকর্তা আটক

মোস্তাফিজুর রহমান : রাজধানীর খিলগাঁও দক্ষিন বনশ্রীতে গৃহকর্তা ও গৃহকর্ত্রীর নির্যাতনের শিকার হয়ে হাওয়া (১৪) নামের এক গৃহকর্মীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ওয়ান-স্টপ ক্রাইসিস সেন্টার (ওসিসি) ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় গৃহকর্তা শরিফ চৌধুরীকে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার বেলা ২টায় খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে তাকে উদ্ধার করে বিকালে চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে নিয়ে আসে পুলিশ।

খিলগাঁও থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) সৈয়দ সাখাওয়াত হোসেন জানান, আমরা যখন মেয়েটিকে উদ্ধার করতে শরীফ চৌধুরীর বাসায় যাই আমাদের দেখে শরীফ চৌধুরী অনেক ক্ষমতা দেখায়। নিজেকে মানবাধিকার কর্মী বলে দাবি করে। এক পর্যায়ে নির্যাতিতা হাওয়াকে আমাদের সামনে হাজির করে।

গৃহকর্মীর ফুপাতো বোন সাহানাজ জানান, গত ৪ মাস আগে শরিফ চৌধুরীর বাসায় হাওয়াকে প্রতি মাসে ৫হাজার টাকা বেতনে কাজের জন্য দেওয়া হয়। এরপর থেকে আমারা হাওয়ার সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করলে তারা দেখা করতে দেয়নি। চার মাস পেরিয়ে গেলেও তার সঙ্গে দেখা করতে না পেরে, খিলগাঁও থানার পুলিশের শরণাপন্ন হই। পরে পুলিশ গিয়ে ওই বাসা থেকে হাওয়াকে উদ্ধার করে ঢামেকে নিয়ে আসে। হাওয়ার শরীর থেকে পা পর্যন্ত পুরাতন নির্যাতনের আঘাতের চিহ্ন। হাসপাতালে এসে হাওয়া অঝোরে কাঁদতে থাকে। তার সাথে কথা বলতে গেলে সে জানায়, কোন কাজের ভুল হলে তাকে রড দিয়ে পেটানো হতো। রুটি বানানো বেলুন দিয়ে পেটাতো ঘুম থেকে ওঠা দেরি হলে গৃহ কর্ত্রি জান্নাতুন নাইমা ব্যাপক মারধর করতো। নির্যাতনের শিকার হাওয়া কিশোরগঞ্জ তাড়াইল উপজেলার নগরকুল উপজেলার সোনামিয়ার মেয়ে। ৩ ভাই ১ বোনের মধ্যে সে সবার বড়। বর্তমানে খিলগাঁও দক্ষিন বনশ্রী বøক ই রোড ৮/২ এর ৪৩ নং বাড়ীর ৬ তলায় শরিফ চৌধুরীর বাসায় গৃহকর্মী হিসাবে কাজ করতো।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ