প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কমেনি বরং বাড়ছে কৃত্রিম দুধের সরবরাহ

মতিনুজ্জামান মিটু : কমেনি বরং বাড়ছে কৃত্রিম দুধের সরবরাহ। নি¤œমানের গুঁড়ো দুধ, আটা, ময়দা, এ্যরারুট, সালফিউরিক এসিড, সরিষার তৈল, মাবিল ইত্যাদি দিয়ে তৈরী করা হয় এই দুধ। বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিল (বিএআরসি) এর পুষ্টি ইউনিটের জরীপ ও পর্যবেক্ষণে এ তথ্য উঠে আসে।

পুষ্টি ইউনিটের পরিচালক ড. মো. মনিরুল ইসলাম জানান, দুধের মান সংক্রান্ত জরীপে লক্ষ্য করা যায় যে দেশের বিভিন্ন বাজারে কৃত্রিম দুধের সরবরাহ ক্রমশ বাড়ছে। এই দুধ প্রস্তুতির সনাক্তকরা প্রধান প্রধান উপকরণগুলো হচ্ছে নিম্নমানের গুঁড়ো দুধ, আটা, ময়দা, এ্যরারুট, সালফিউরিক এসিড, সরিষার তৈল, মাবিল ইত্যাদি।

প্যাকেটজাত দুধ অপেক্ষা বাজারে পাওয়া খোলা দুধের মধ্যে কলিফর্ম ব্যাকটেরিয়ার আধিক্য বেশী। বিভিন্ন বাজার গবেষণা জরীপে দেখা যায় যে খোলা বাজারে বিক্রিত দুধের মধ্যে বিক্রেতা সর্বোচ্চ ২০ ভাগ পানি ও প্রতি লিটারে ৪ থেকে ৫ ফোঁটা ফরমালিন মিশিয়ে থাকে। বিক্রিত দুধের মধ্যে ৪০ থেকে ১০০ ভাগ ক্ষেত্রে পানি ও ৫ থেকে ১০০ ভাগ ক্ষেত্রে ফরমালিন মেশান হয়।

খোলা বাজার থেকে সংগ্রহকরা দুধের ২৫ ভাগ নমুনায় নাইট্রাইটের উপস্থিতি পাওয়া যায়। যা থেকে প্রতীয়মান হয় যে ওইসব দুধে মেশানো পানি পুকুর, নদী অথবা অন্য কোনো অপরিশোধিত উৎস থেকে সংগ্রহ করা হয়।

এদিকে বিভিন্ন বাজারে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ওই গবেষণা জরীপের আলোকে প্রয়োজনীয় পরামর্শ দেয়ার পরেও দেশের বাজারগুলোতে কৃত্রিম দুধের সরবরাহ কমেনি। বরং ক্ষেত্র বিশেষে বেড়েছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ