প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বাংলাদেশ এবার বিশ্বচ্যাম্পিয়ন হবে: সাকিব

স্পোর্টস ডেস্ক: একটা সময় অংশগ্রহণই ছিল মূল কথা। এরপর ধীরে ধীরে গ্রপর্বে পার করা, তারপর কোয়ার্টার ফাইনাল। এখন তো সেমিফাইনাল কিংবা ফাইনাল নয়, বাংলাদেশের মানুষ বিশ্বাস করে এই দলটা বিশ্বকাপও জিততে পারে। বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানও মানুষের এই বিশ্বাসকে খাটো করছেন না। বরং উঁচু গলায়ই টাইগার দলের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক বললেন, দলের সবার মধ্যেও এই বিশ্বাসটা আছে।

গতকাল বিকেলে বসুন্ধরা মাঠে একটি মোবাইল অপারেটরের সৌজন্যে একটি প্রদর্শনী ফুটবল ম্যাচের আয়োজন করা হয়েছিল। সেখানেই অতিথি হয়ে গিয়েছিলেন সাকিব। বাংলাদেশি অলরাউন্ডার শোনালেন সামনের বিশ্বকাপে বাংলাদেশের সম্ভাবনার কথাও।

এখন আর সেমিফাইনাল বা ফাইনাল নয়। দেশের মানুষসহ সবাই বাংলাদেশ দলকে চ্যাম্পিয়ন দেখার আশা করে, মনে করছেন সাকিব, ‘বাংলাদেশের সব মানুষ আশা করছে বাংলাদেশ এবার চ্যাম্পিয়ন হবে। এটা তো শুধু শুধু করছে না। এর আগে তো কোনবার বলে নাই যে আমরা বিশ্বকাপ জিততে পারি। এবার বলছে কারণ তারাও এই জিনিসটা বিশ্বাস করে। এবং আমরা প্লেয়াররাও বিশ্বাস করি। আমি সিউর বিসিবির সবাইও বিশ্বাস করে যে, এরকম কিছু আমরা করতে পারি।’

ফরমেটটা ওয়ানডে বলেই দলকে নিয়ে বেশি আত্মবিশ্বাসী সাকিব। তিনি বলেন, ‘এই ফরম্যাটটায় আমরা সবচেয়ে শক্তিশালী, টেস্ট ও টি-টোয়েন্টির তুলনায় আমরা স্বাভাবিকভাবেই একটু বেশি ভালো অবস্থানে আছি। সেদিক থেকে অবশ্যই আশাবাদি। যেভাবে আমরা পারফর্ম করছি, আমরা এখন এশিয়ার সেকেন্ড বেস্ট টিম। শেষবার যখন চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি হল, সেখানে ভারত পাকিস্তান ফাইনাল হল। আমরা সেই পাকিস্তানকে হারাতে পেরেছি। আমি মনে করি আমাদের খুব ভালো সম্ভাবনা আছে। বেশ কিছু ভালো দল আছে, আমাদের ধারাবাহিকভাবে ভালো খেলতে হবে। যেহেতু বড় টুর্নামেন্ট। নয়টা ম্যাচ, সেমিফাইনাল পর্যন্ত যাওয়া অনেক কঠিন কাজ হবে। আমার কাছে মনে হয় পরের পার্টটা বরং আরও ইজি। এরপর মাত্র দুইটা ম্যাচ, সেমিফাইনাল ও ফাইনাল। প্রথমে আপনাকে নয়টা ম্যাচ ভাল খেলতে হবে, পরে দুইটা ম্যাচ।’

সাকিব যত সহজে হিসেবটা দিলেন। কাজটা তত সহজ হবে না। টাইগার অলরাউন্ডার সেটাও মানছেন। ইংল্যান্ডের কন্ডিশনে ভালো করতে অনেক পরিশ্রম করতে হবে বলেই মত তার, ‘আমাদের জন্য কঠিন, এটাতে দ্বিমত পোষণ করার কিছু নেই। ইংল্যান্ড এমন একটা জায়গা যেখানে আমরা খুব বেশি ভালোও করি নি। যদিও আমরা চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির সেমিফাইনালে খেলেছি। আমরা কিন্তু শুধুমাত্র এক ম্যাচ ভালো খেলার কারনেই সেমিফাইনালে কোয়ালিফাই করি। ওভারঅল যদি টুর্নামেন্ট দেখেন, আমরা যে খুব বেশি ভালো করেছি সেটা আমি বলব না। আমাদের অনেক ভালো করতে হবে। আমাদের জন্য চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ভালো অভিজ্ঞতা ছিল, সেটা যদি আমরা কাজে লাগাতে পারি, তাহলে ভালো কিছুই হবে।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ