প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

যাপিত জীবনের সমস্যাকে সরকার উৎখাতের গোলা বানাবেন না : তথ্যমন্ত্রী

রফিক আহমেদ : তথ্যমন্ত্রী ও জাসদ সভাপতি হাসানুল হক ইনু বলেছেন, যাপিত জীবনের সমস্যাগুলোকে কখনই সরকার উৎখাতের কামানের গোলা বানানো উচিত নয়। গণমাধ্যম যাপিত জীবনের সমস্যা তুলে ধরে কিন্তু তা থেকে রাজনৈতিক ফায়দা লোটা উৎসাহিত করে না। প্রয়াত খ্যাতিমান সাংবাদিক গোলাম সারওয়ার তার কর্মজীবনে এটি প্রতিষ্ঠা করে গেছেন।

মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর কাকরাইলে প্রেস ইনস্টিটিউট বাংলাদেশ (পিআইবি) এর মিলনায়তনে দৈনিক সমকালের সাবেক সম্পাদক গোলাম সারওয়ারের শোকসভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি একথা বলেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, গণমাধ্যমকে গণতন্ত্র ও ডিজিটাল সমাজের সাথে প্রতিনিয়ত খাপ খাওয়াতে হয়। কিন্তু গণতন্ত্র ও গণমাধ্যম কখনোই রাজনীতিতে জঙ্গিসন্ত্রাসী-রাজাকার-সাইবার অপরাধী থাকার ছাড়পত্র দেয় না। গোলাম সারওয়ারের মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ এবং সাংবাদিকতায় একাগ্রভাবে নিয়োজিত জীবনের প্রতি পরম শ্রদ্ধা জানান।

তিনি বলেন, শেখ হাসিনার সরকার গণমাধ্যমের স্বাধীনতা সমুন্নত রেখেই আইনকানুন প্রণয়ন করে, ফলে চক্রান্তকারিদের অপচেষ্টা সফল হবে না। ভারসাম্য বা নিরপেষতার নামে মুক্তিযোদ্ধা ও রাজাকারকে একপাল্লায় মাপা গণমাধ্যমের কাজ নয় বলে স্মরণ করিয়ে দেন মন্ত্রী।

প্রেস ইনস্টিটিউট বাংলাদেশ এর মহাপরিচালক মো. শাহ আলমগীরের সভাপতিত্বে তথ্যসচিব আবদুল মালেক, প্রধান তথ্য অফিসার কামরুন নাহার, খ্যাতিমান চলচ্চিত্র অভিনেত্রী কবরী সারওয়ার, জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি শফিকুর রহমান, দৈনিক সমকালের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মুস্তাফিজ শফি প্রমূখ স্মরণসভায় প্রয়াত খ্যাতিমান সাংবাদিক গোলাম সারওয়ারের জীবন ও কর্মের ওপর আলোকপাত করে বক্তব্য রাখেন। এদিকে, গণমাধ্যমকর্মী আইন মন্ত্রী সভায় অনুমোদন পাওয়ায় মঙ্গলবার রাজধানীতে জাতীয় প্রেসকাব চত্বরে গণমাধ্যমকর্মীদের আনন্দ শোভাযাত্রায় প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু।

এ এসময় মন্ত্রীর সাথে তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম ও তথ্যসচিব আবদুল মালেক বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) আয়োজিত আনন্দ শোভাযাত্রায় যোগ দেন। এছাড়াও বিএফইউজে সভাপতি মোল্লা জালাল, সাধারণ সম্পাদক শাবান মাহমুদ, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন সভাপতি আবু জাফর সূর্য, সাধারণ সম্পাদক সোহেল হায়দার চৌধুরীসহ গণমাধ্যমকর্মীবৃন্দ শোভাযাত্রায় যোগ দেন।

তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম এসময় গণমাধ্যমের প্রতি শেখ হাসিনার সরকারের আন্তরিকতার কথা পুণরায় স্মরণ করিয়ে দেন। তথ্যসচিব আবদুল মালেক তার সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে সকল গণমাধ্যমকর্মীকে আন্তরিক অভিনন্দন জানান।

সম্পাদনা-শাহীন চৌধুরী

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ