প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘পরিবহন শ্রমিকদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নিতে হবে’

প্রভাষ আমিন : চালকরা যদি নিয়ম মেনে লাইসেন্স নেন, সাবধানে গাড়ি চালান, তাহলে তো তাদের ভয় পাওয়ার কিছু নেই। কিন্তু তারা রাজপথকে মরণফাঁদ বানিয়ে ফেলবেন, আর তাদের কিছু বলা যাবে না, এটা কিছুতেই মেনে নেয়া যায় না। অপরাধী না হলে কঠোর আইনে ভয়ের কিছু নেই।

সোমবার ফেসবুকে এসব কথা লিখেছেন তিনি।

প্রভাষ আমিন আরো লিখেছেন, কেউ যদি ন্যায্য দাবি করে, তিনি একজন হলেও আমরা তার পাশে আছি। আমরা দেখেছি একজন শিক্ষার্থীর অনশনের কারণে নড়েচড়ে বসতে বাধ্য হয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এখনও ডাকসু নির্বাচন হয়নি, তবে সবাই এ দাবির যৌক্তিকতা মেনে নিয়েছেন। কদিন আগে আরেক শিক্ষার্থীর অনশনে বাতিল হয়ে গেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘ঘ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার ফল।

গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রে দাবি করা, আন্দোলন করা, অনশন করা, ধর্মঘট করার অধিকার সবার আছে। কিন্তু অন্যায় দাবি আদায়ে সাধারণ মানুষকে জিম্মি করার অধিকার কারো নেই, থাকা উচিত নয়।

সরকারের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তারা মানুষকে কথা বলতে দেয় না, আন্দোলন করতে দেয় না। মামলা-হামলায় দমন করে বিরোধী মতকে। এই অভিযোগের একটা বাস্তব প্রতিফলন চাই। চাই সরকার কঠোরভাবে পরিবহন শ্রমিকদের দমন করুক। সরকার বার বার নমনীয় থেকে পরিবহন শ্রমিকদের পক্ষে রাখতে চায়। কিন্তু কয়েক লাখ পরিবহন শ্রমিককে পক্ষে রাখতে গিয়ে যে কোটি কোটি সাধারণ মানুষ দুর্ভোগ পোহাচ্ছে, সেটাও আমলে নিতে হবে। আর সংখ্যাটা গুরুত্বপূর্ণ নয়।

পরিবহন শ্রমিকদের দাবিগুলো অন্যায়, অন্যায্য। তাই তাদের বিরুদ্ধে কঠোরতর ব্যবস্থা নিতে হবে।