Skip to main content

কট্টর-ডানপন্থী বোলসোনারো ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত

সান্দ্রা নন্দিনী : ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয় পেয়েছেন কট্টর-ডানপন্থী নেতা জাইর বোলসোনারো। সাবেক এই সেনা কর্মকর্তার দল সোশ্যাল লিবারেল পার্টি ৫৫ শতাংশ ভোট পেয়েছে। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বামপন্থী নেতা ফার্নান্দো হাদ্দাদের ওয়ার্কার্স পার্টি পেয়েছে ৪৫ শতাংশ ভোট। ২০১৯ সালের জানুয়ারির ১ তারিখ থেকেই দায়িত্ব নেবেন তিনি। রোববার দ্বিতীয় দফায় অনুষ্ঠিত ভোটে মোট প্রাপ্ত ভোটের ৯৯ শতাংশ গণনা করা হয়েছে। বেসরকারিভাবে এখন পর্যন্ত বোলনোনারোই এগিয়ে এবং লাতিন আমেরিকার সবচেয়ে বড় দেশটির পরবর্তী সম্ভাব্য প্রেসিডেন্ট। ব্রাজিলকে অপরাধ ও দুর্নীতিমুক্ত করার অঙ্গীকারের মধ্যদিয়েই নির্বাচনে জয়লাভ করেন ৬৩ বছর বয়সী বোলসোনারো। যদিও বিরোধীদের দাবি, তার কারণে রীতিমত হুমকির মুখে পড়বে ব্রাজিলের গণতন্ত্র। বিজয় ভাষণে বোলসোনারো বলেন, ‘ব্রাজিলের সংবিধান, গণতন্ত্র ও স্বাধীনতারক্ষায় সম্ভাব্য সবকিছুই করবো। আর এটি কোনও দল বা ব্যক্তির প্রতিজ্ঞা নয়, এটি ঈশ^রের সামনে নেওয়া শপথবাক্য।’ তিনি বলেন, ‘আমি আরও প্রতিজ্ঞা করছি উত্তপ্ত ব্রাজিলে স্থিতি নিয়ে আসবো এবং ব্রাজিলকে পুনরায় একটি “মহান রাষ্ট্র” হিসেবে গড়ে তুলবো।’ প্রসঙ্গত, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের একজন বিশেষ গুণগ্রাহী হিসেবে বোলসোনারোর পরিচিতি রয়েছে। নির্বাচনের আগে নারীবিদ্বেষী মন্তব্য করে তোপের মুখে পড়েছিলেন বোলসোনারো। ভোটের ঠিক আগে অনলাইনে প্রায় অর্ধকোটি নারীর বিরোধিতার পরও বোলসোনারোকেই বিজয়ী বানিয়েছে ব্রাজিলের জনগণ। বিভিন্ন সময়ে মানুষকে ‘কালো’ বলে অথবা সমকামীদের বিরুদ্ধে বিরূপ মন্তব্য করে সমালোচিত হয়েছেন তিনি। উল্লেখ্য, গত ৬ সেপ্টেম্বর নির্বাচনী সভায় ছুরিকাঘাতের শিকার হন বোলসোনারো। আর এরপরই প্রায় ২৮ শতাংশ জনপ্রিয়তা বেড়ে যায় তার। এএফপি, বিবিসি

অন্যান্য সংবাদ