প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

পাচঁদোনা মোড়ে চালকদের মুখে কালি মেখে কান ধরে উঠবস কারায় শ্রমিকরা

খন্দকার শাহিন, মাধবদী(নরসিংদী): ৮ দফা দাবিতে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের ডাকে পরিবহন ধর্মঘট চলছে। নরসিংদীতে মাধবদীর পাচঁদোনা মোড়ে দেখাগেছে রিকশা, সিএনজি, প্রাইভেটকার ও পাজারো গাড়ীর চালকসহ মুখে কালি মেখে কান ধরে উঠবস কারায় শ্রমিকরা। এছাড়া পরিবহন শ্রমিকদের সাথে শিশুদেরও দেখা গেছে মহাসড়ক অবরোধ করে রাখতে।

রোববার (২৮ অক্টোবর) ভোর ৬টা থেকে সারাদেশে এই ধর্মঘট শুরু হয়েছে। তবে এটা ধর্মঘট নয় অঘোষিত হরতাল মনে করছে সাধারণ মানুষ। তারা বলছেন, ‘ধর্মঘটের ঘোষণা না দিয়ে হরতালের ঘোষণা দিলেই ভালো হতো।’

সকাল ৭টা থেকে সাহেপ্রতাব মোড়, পাচঁদোনা মোড়ে ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেনে শ্রমিকরা। এসময় মহাসড়কে ট্রাক ও মালবাহী গাড়ী মাঝপথে রেখে যানচলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়। ‘ধর্মঘটের ঘোষণা না পর থেকেই শ্রমিকরা মহাসড়ক ও আঞ্চলিক সড়ক গুলোতে সিএনজি, রিকশা থামিয়ে যাত্রীদের নামিয়ে দিতে দেখা যায়। বাধা দিলেই লাঞ্ছিত করা হয়। বিলাশ বহুল গাড়ীর চালকদের মুখে কালি মেখে দেওয়া হয় । রিকশা চালকদের মুখেও কালি মেখে দিতে দেখা গেছে।

বাবুরহাট বাজারের ব্যবসায়ী রফিকুল ইসলাম বলেন, তারা শ্রমিকরা কর্মবিরতি দিবে দিক, সমস্যা নাই। আমরা রিকশা-ভ্যানে যাবো, কিন্তু তারা ধর্মঘটের ডাক দিয়ে এখন হরতাল পালন করছে। আর আমার দেশের পুুলিশ হয়তো বাসায় ঘুমিয়ে পড়েছে। তাহলে আমরা সাধারণ জনগণ কোথায় যাবো।’

তিনি বলেন, ‘তারা গাড়ি চলতে দিচ্ছে না। আবার চালক ও যাত্রীদের হয়রানি করছে মুখে কালি মেখে দিচ্ছে। এটা তারা খুব অন্যায় করছে। সরকারের এদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া উচিত।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ