প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সারাদেশে ৪৮ ঘণ্টার পরিবহন ধর্মঘট চলছে, ভোগান্তিতে যাত্রীরা

জান্নাতুল ফেরদৌসী: সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮-এর কয়েকটি ধারা সংশোধনসহ ৮ দফা দাবিতে ৪৮ ঘণ্টার ধর্মঘট পালন করছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন। এদিকে পরিবহন বন্ধ থাকায় রোববার সকাল থেকে অফিসগামি মানুষ চরম ভোগান্তিতে পড়েছে। রাজধানীতে হাতে গোনা কয়েকটি বিআরটিসি এর বাস চলাচল করলেও অন্যান্য পরিবহনগুলো চলতে দেখা যায়নি।

অফিসগামী মোক্তার হোসেন বলেন, ‘বাস শ্রমিকরা ধর্মঘটের ডাক দিয়েছেন সেটা অযৌক্তিক। কেননা তাদের দাবি দাওয়া থাকতে পারে এ বিষয়ে তারা সরকারের সঙ্গে বসে আলোচনা করতে পারে। কিন্তু সাধারণ মানুষকে দুর্ভোগে ফেলে হয়রানির করার কোনো মানে হয় না। প্রায় ঘণ্টা দেড়েক দাঁড়িয়ে থেকেও অফিসে যাওয়ার মতো বাস পাচ্ছি না।’

মহাখালীতে বাসের জন্য দাঁড়িয়ে থাকা অফিসগামী জাহিদ বলেন,  ২ ঘণ্টা ধরে দাঁড়িয়ে থেকেও মোহাম্মদপুরে যাওয়ার জন্য কোনো বাস পাচ্ছি না।

দূর পাল্লারসহ বাস চলাচল বন্ধ থাকায় দুর্ভোগে পড়েছে বিভিন্ন জেলার যাত্রীরা। খুলনায় রোববার ভোর থেকে ৪৮ ঘণ্টার পরিবহন ধর্মঘট শুরু হয়েছে। ধর্মঘটের কারণে বিভাগীয় নগরী খুলনা থেকে ঢাকা, চট্টগ্রাম ময়মনসিংহ, রংপুর,  সিলেটের, বরিশাল ও রাজশাহীসহ সব রুটে যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে। বাস টার্মিনালেও দেখা গিয়েছে একই চিত্র। ফলে দূরপাল্লার যাত্রীরা পড়েছেন সীমাহীন দুর্ভোগে।

শনিবার সংগঠনটির পক্ষ থেকে এক বিজ্ঞপ্তিতে ধর্মঘটের সিদ্ধান্তের কথা গণমাধ্যমকে জানানো হয়। গত ১৯ সেপ্টেম্বর সংসদে পাস হয় সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮। এতে দুর্ঘটনা কবলিত যানবাহনের চালক জামিন পাবেন না বলে উল্লেখ করা হয়। একই সাথে চালক অপরাধী হিসেবে প্রমাণিত হলে ৩০২ ধারায় ফাঁসির বিধান রাখা হয়।

মূলত এরপর থেকেই আইনটি সংশোধনের দাবি জানিয়ে আসছে যানবাহনের শ্রমিকরা। এরই ধারাবাহিকতায় আজ ভোর ৬টা থেকে টানা ৪৮ ঘণ্টা ধর্মঘট পালনের ঘোষণা দেয় বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ