প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিয়ের পরেও তারা শান্তশিষ্ট, লক্ষী কিউটি কিউটি!!

বাংলাইনসাইডার :  ছেলে বাউন্ডুলে। এ বাড়ি ও বাড়ি ঢিল মারে। মেয়েদের পেছলে লাইন মারে। আয় রোজগারের চিন্তা ভাবনা নেই। এই ছেলেকে কিভাবে শান্ত করবে? গ্রামে একটা কথা প্রচলিত আছে ছেলেকে বিয়ে করিয়ে দেন। দেখবেন নিজেই শান্ত হয়ে যাবে। ঘর সংসারে মন দিবে। অনেক মেয়েকে নিয়েও একই কথা বলা হয়। তারকা জগতের ইতিহাস ঘাটলে এমন অনেকের দেখা মিলে। একটা সময়ে তাদের নামে কত সংবাদ কিংবা রটনা চলিত ছিল মানুষের মুখে মুখে। অথচ বিয়ের পরে তারা পুরোদস্তুর গৃহিনী। সংসারে মনোনিবেশ করেছেন। একদম শান্তশিষ্ট, লক্ষী বউ। কে বলবে তাকে নিয়ে রটনা!

ঢালিউডের রাজকন্যা হিসেবে খ্যাত ববিতাকে নিয়েও কম গসিপ গুঞ্জন হয়নি। কখনও জাফর ইকবাল কখনও ফারুক। তবে ফারুককে নিয়েই তার প্রেম গুঞ্জণের বাতাসটি বেশি ছিলো। ব্যাক্তিগত জীবনে তেজি আর প্রভাবশালী এই নায়ক ববিতাকে যেভাবে চেয়েছিলেন হয়ত সেভাবে না পাওয়ায় নিজেকে গুটিয়ে নিতে থাকেন। ফারুক যখন ববিতার কাছ থেকে দূরে সরে যান তখন ববিতা অভিমান করে খুব অল্প সময়ের মধ্যেই বিয়ে করে ফেলেন ব্যবসায়ী ইফতেখারুল আলমকে। তারপর আর তাকে নিয়ে কোন গুঞ্জন নেই। এমনকি স্বামী মারা যাওয়ার পরে এক ছেলেকে নিয়েই দীর্ঘদিন কাটিয়ে দিয়েছেন।

এইতো শ্রাবন্তীর কথাই বলা যায়। বিয়ের পর থেকেই শোবিজের রঙিন দুনিয়া থেকে নিজেকে আড়াল করে নেন এ গুণী অভিনেত্রী। সংসারে মন দেন। সর্বশেষ ২০১০ সালে নূরুল আলম আতিকের ‘ডালিম কুমার’ নাটকে অভিনয়ের পর আর নতুন কোনো নাটকে তাকে দেখা যায়নি। গায়ক পার্থর সঙ্গে বিয়েসহ নানা রকম রটনা ছিল তাকে নিয়ে। কিন্তু বিয়ের পর আর কোন গুঞ্জন নেই।

বিবাহিত তারকা গায়ক আসিফ আকবরের প্রেমে পড়েন টিভি অভিনেত্রী দীপা খন্দকার। তাদের প্রেম নিয়ে তেমন কোন গুঞ্জন মিডিয়াতে পাত্তা পায়নি। অনেকদিন পর সে খবর আসিফ অকপটে স্বীকার পায়। শুধু কি আসিফ! টেলিভিশন কর্মকর্তাসহ নানাজনের সঙ্গে প্রেমের গুঞ্জন শোনা যেত। অবশেষে হুট করে গিয়াস উদ্দীন সেলিমের সে সময়ের সহকারী পরিচালক শাহেদ আলী সুজনকে বিয়ে করে দুই সন্তানের জননী। বিয়ের পরে তিনি এমন কোন গুঞ্জনের পাত্রী হননি।

মাহিয়া মাহির সঙ্গে রটে জাজ মাল্টিমিডিয়ার প্রেমের খবর। কখনো নায়ক বাপ্পীর সঙ্গে। বিয়ের গুঞ্জন উঠেছিল বন্ধুর সঙ্গে। কিন্তু মাহি হুট করে বিয়ে করে ফেলেন অপু নামের এক ব্যবসায়ীকে। বিয়ে করে এখন শান্তশিষ্ট মাহী। প্রেম বিষয়ক আর গুঞ্জন নেই।

মৌসুমীকে নিয়েও কত প্রেমের গুঞ্জন। সালমান শাহ থেকে শুরু করে মান্না। পরিচালকদের সঙ্গেও রয়েছে প্রেমের গুঞ্জন। তবে এতসব গুঞ্জন পাশ কাটিয়ে বিয়ে করে ওমর সানীকে। কৈ বিয়ে পর তো কোন গুঞ্জন নেই। দীর্ঘদিন ধরে স্বামী সন্তান নিয়ে সুখে শান্তিতে আছেন।

মডেল হিসেবে জনপ্রিয়তার তুঙ্গে থাকলে মৌকে নিয়েও প্রকাশ পায় নানা গুঞ্জন। নানা নিউজে তাকে নিয়ে মুখরিত মিডিয়া। তখনই বিয়ের পিড়িতে বসলেন জাহিদ হাসানের সঙ্গে। সেই থেকে আর নেই গুঞ্জন। মডেল হিসেবে জনপ্রিয়তা পাওয়া তানিয়াও এক সময় ছিলেন তুমুল আলোচনায়। কতশত গুঞ্জন। কিন্তু বিয়ের পরে শান্তশিষ্ট। ঘর সংসার আর অভিনয় ছাড়া অন্য কোন খবর নেই।

সারিকাও বিয়ের পরে শান্ত হয়েছিলেন। শোবিজই তো ছেড়ে দিলেন। কিন্তু সংসার টিকাতে পারেননি এ অভিনেত্রী। ফের শোবিজে কাজ শুরু করেছেন, নানা গুঞ্জনও তাকে ঘিরে ধরেছে।

বিয়েটা যে মানুষের জীবন বদলিয়ে দিতে পারে। সেটা শোবিজ তারকারাও প্রমাণ করলেন। নিজেদের গোছাতে তারকাদের বিয়ে ছাড়া আর উপায়ও বা কি!

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ