প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

প্রধানমন্ত্রীর ওপর আঘাত আসলে আপনাদের ঘর থাকবে না: শামীম ওসমান

সাব্বির আহমেদ : জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের কড়া সমালোচনা করে নারায়ণগঞ্জের সংসদ সদস্য এ কে এম শামীম ওসমান বলেছেন, ড. কামাল হোসেন জ্ঞানপাপী। আর এই জ্ঞানপাপীর নেতৃত্বে গঠিত হয়েছে ঐক্যফ্রন্ট। কিন্তু শয়তান শয়তানি করেও কিছু করতে পারে না, এই ঐক্যফ্রন্টও পারবে না। আপনারা নারায়ণগঞ্জ এসে দেখুন, কতোজন জনগণ আপনাদের পাশে আছেন? কামাল গংরা জামায়াতে ইসলামীর সঙ্গে ঐক্যজোট করেছেন। ঐক্যফ্রন্ট দেশে নির্বাচন চায় না। তারা লাশ চায়, দেশে উলফা প্রতিষ্ঠা করতে চায়। এসবের কিছুতেও আমরা বিচলিত নই। কারণ আওয়ামী লীগের রাজনীতি জনগণকে নিয়ে।

শনিবার নারায়ণগঞ্জ সদরের চাষাড়ার ওসমানী স্টেডিয়ামে স্থানীয় আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক বিশাল জনসভায় তিনি এসব কথা বলেন।

ড. কামাল হোসেনের সমালোচনা করে শামীম ওসমান বলেন, কামাল হোসেন বাংলাদেশের উন্নয়ন দেখতে পান না। তিনি আকাশে তাকিয়ে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট দেখতে পান না, নদীতে তাকিয়ে পদ্মাসেতু দেখতে পান না! হায়রে কপাল মন্দ চোখ থাকিতে অন্ধ!

তিনি বলেন, ঐক্যফ্রন্ট নভেম্বর মাসকে টার্গেট করেছে। এ মাসেই তারা ভয়াবহ কিছু করার পরিকল্পনা করছে। পরিষ্কার বলতে চাই, আমরা অনেক ধৈর্য ধরেছি। কোনো কিছুরই প্রতিশোধ নেয়নি। সবসময় শান্তিপূর্ণ ছিলাম। যদি প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের ওপর আঘাত আসে তাহলে হামলার ইন্ধনদাতাদের বাড়ি বাংলাদেশে থাকবে না। ২৪ ঘন্টার মধ্যে নারায়ণগঞ্জ থেকে ঢাকায় গিয়ে তাদের বাড়িতে পালটা হামলা করব।

এর আগে দুপুর থেকেই জনসভাস্থলে নারায়ণগঞ্জ ও আশপাশের এলাকা থেকে দলীয় নেতাকর্মীরা দফায় দফায় মিছিল নিয়ে সমাবেশে জড়ো হতে থাকেন। রঙ বেরঙের ব্যানার-ফ্যাস্টু ও বাদ্যযন্ত্র পিটিয়ে সমাবেশে আসেন হাজারো নেতাকর্মী। মূল আনুষ্ঠানিকতা শুরুর আগেই সভার মাঠ কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায়। একপর্যায়ে সভাস্থল ছাপিয়ে অসংখ্য নেতাকর্মীদের পাশের সড়কে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়। সমাবেশের শুরু থেকেই নেতাকর্মীরা মুহুর্মুহু স্লোগান দিতে থাকে। শামীম ওসমান বক্তব্য দেওয়ার আগমুহুর্তে তারা স্লোগানে বলেন, ‘নারায়ণগঞ্জের মাটি শামীম ওসমানের ঘাঁটি। নারায়ণগঞ্জ এর মাটি শেখ হাসিনার ঘাঁটি’। সমাবেশের বাইরে অন্তত ৭টি মাইক দেয়া হয়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ