Skip to main content

শিক্ষা প্রশাসনে দক্ষ কর্মকর্তাদের তালিকা হচ্ছে

তরিকুল ইসলাম সুমন : শিক্ষা প্রশাসনে কর্মরত শিক্ষক, শিক্ষা কর্মকর্তা ও বিসিএস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডারের যোগ্য, দক্ষ ও উপযুক্ত কর্মকর্তাদের তালিকা তৈরির উদ্যোগ নিয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। সারাদেশের মাঠপর্যায়ের শিক্ষা প্রশাসনকে আরও গতিশীল ও দুর্নীতিমুক্ত করতে এসব কর্মকর্তাকে পর্যায়ক্রমে শিক্ষা প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ পদগুলোতে বসানো হবে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে। সূত্র জানায়, সম্প্রতি শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক সভায় শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ উপযুক্ত শিক্ষক ও কর্মকর্তাদের তালিকা প্রণয়নের নির্দেশ দেন। এক্ষেত্রে কর্মকর্তাদের মেধা, পেশাদারিত্ব, সততা ও দক্ষতাকে গুরুত্ব দেওয়ার কথা বলা হয়েছে। তিনি বলেন, প্রয়োজনীয় দক্ষতা নেই এবং আইন-কানুন ও বিধি-বিধান সম্পর্কে ধারণার অভাব রয়েছে এমন মেধাহীন কর্মকর্তাদের আর শিক্ষা প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ পদে রাখা হবে না। বিভিন্ন শিক্ষা বোর্ডসহ মন্ত্রণালয়ের অধীন বিভিন্ন দপ্তর বা সংস্থায় পদ শূন্য হলে (বিসিএস শিক্ষা ক্যাডার পদের বিপরীতে প্রেষণে নিয়োগ দেওয়ার সময়) সেখানে নিয়োগ দেওয়ার উপযুক্ত কর্মকর্তা খুঁজে পাওয়া যায় না। আবার অযোগ্যরা নানা মহল থেকে তদবির করতে থাকে। এতে পদায়নে দেরি হয়। এ সমস্যা সমাধানের আগাম প্রস্তুতি হিসেবে একটি ফিটলিস্ট প্রস্তুত থাকা প্রয়োজন। মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরকেও (মাউশি) সূত্র জানায়, এমাসের শুরুতে এ ধরণের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। ইতোমধ্যে ৮০ জনের প্রাথমিক সাক্ষাৎকার নেওয়া হয়েছে। এছাড়াও বিভিন্ন সময়ে কর্মকর্তাদের ব্যক্তিগত তথ্যাবলি বা পার্সোনাল ডাটাশিট (পিডিএস), বার্ষিক গোপনীয় প্রতিবেদন (এসিআর), ডেস্ক বা কর্মস্থলের পারফরম্যান্স (কৃতিত্ব) মূল্যায়ন করে কর্মকর্তাদের হালনাগাদ তথ্য সংগ্রহ চলছে। এছাড়াও দেশের ৮ টি বোর্ড, মাদ্রাসা ও কারিগরী শিক্ষা বোর্ড, মাউশি, ডিআইএ এবং শিক্ষার মানোন্নয়ন-সংক্রান্ত বিভিন্ন প্রকল্পে অনিয়তকারী শনাক্ত করা হয়েছে।