Skip to main content

গল টেস্টেই ক্যারিয়ারের ইতি টানছেন হেরাথ

স্পোর্টস ডেস্ক: অবশ্য কয়েক মাস আগেই অবসর নেয়ার কথা বলেছিলেন হেরাথ। জানিয়েছিলেন ঘরের মাঠে ইংল্যান্ড সিরিজই হবে তার শেষ সিরিজ। অবসর প্রসঙ্গে তিনি বলেছিলেন ‘প্রত্যেকেই এই পথে যেতে হবে এবং আমিও শেষ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আর একটি সিরিজই আমি খেলছি (প্রতিপক্ষ ইংল্যান্ড)। আশাকরি ভালো কাটবে।’ তবে এখন জানা গেছে, গল টেস্টই হতে যাচ্ছে তার ক্রিকেট ক্যারিয়ারের শেষ টেস্ট। ১৯৯৯ সালে এই মাঠেই টেস্ট অভিষেক হয়েছিল এই স্পিনারের। তাই এই মাঠে খেলেই ক্যরিয়ারের ইতি টানতে চাইছেন তিনি। এছাড়া শ্রীলঙ্কার গল ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আর মাত্র একটি উইকেট পেলেই তার স্বদেশী কিংবদন্তী স্পিনার মুত্তিয়া মুরালিধরনের সাথে এই মাঠের ১০০ উইকেটের ক্লাবে প্রবেশ করবেন তিনি। মুরালির পর লঙ্কান স্পিন বোলিং লাইন আপকে একাই টেনেছেন এই স্পিনার। তার অবসরে লঙ্কান শিবিরে অনেক বড় ঘাটতি দেখা দিবে। কিন্তু ইনজুরিতে জর্জরিত এই ক্রিকেটার, ২০১৭ সাল থেকে তিন ম্যাচ টেস্ট সিরিজের সবগুলো ম্যাচ খেলতে পারেননি। বেশ কিছুদিন বিশ্রামের পর চলতি বছর ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে তিন টেস্টের একটি খেলেছিলেন তিনি। ৪০ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার এখন অবধি ৯২ টেস্ট খেলছেন। উইকেট কুড়িয়েছেন ৪৩০ টি, যা টেস্ট ইতিহাসে বাঁহাতি স্পিনারদের মাঝে সর্বোচ্চ। যদি তিনি শেষ টেস্টে পাঁচ উইকেট নিতে সক্ষম হন তাহলে টেস্ট ইতিহাসের সেরা বোলারদের মধ্যে সপ্তম অবস্থানে উঠে আসবেন তিনি। পাশাপাশি রিচার্ডস হার্ডলি (৪৩১), স্টুয়ার্ট ব্রড (৪৩৩) এবং কাপিল দেবকে (৪৩৪) পেছনে ফেলবেন এই স্পিনার। ৯০'র দশকে অভিষেক হওয়া খেলায় থাকা টেস্ট ক্রিকেটারদের মধ্যে হেরাথই শেষ ক্রিকেটার। গল ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আগামী ৬ই নভেম্বর থেকে শুরু হবে ইংল্যান্ড এবং শ্রীলঙ্কার মধ্যকার সিরিজের প্রথম টেস্ট।