প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কোরিয়ান গাড়ি নির্মাতারা বাংলাদেশে বাণিজ্য সম্প্রসারণে আগ্রহী

নূর মাজিদ : বাংলাদেশের গাড়ির বাজারে নিজেদের ব্যবসায় আরও সম্প্রসারণের আগ্রহ প্রকাশ করেছে দক্ষিণ কোরিয়ার গাড়ি উৎপাদকগণ। বিগত তিন বছরে বাংলাদেশের বাজারে দেশটির তৈরি গাড়ির বিক্রি ২০ শতাংশ বৃদ্ধির প্রেক্ষপটে তারা এমন আগ্রহ ব্যক্ত করেছে। বাংলাদেশ সড়ক পরিবহণ কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) জানায়, শুধুমাত্র ২০১৭ সাল নাগাদ বাংলাদেশের অটোমোবাইল বাজারের ৬ শতাংশ নিয়ন্ত্রণ করতে সমর্থ হয়েছে দক্ষিণ কোরিয়া।

এই বিষয়ে কোরিয়া-বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির উপদেষ্টা শাহাব উদ্দিন খান বলেন, বাংলাদেশের বাজারে কোরিয়ার অটোমোবাইল এবং ইলেকট্রনিক পণ্য প্রস্তুতকারক কো¤পানিগুলোর ব্যবসায় বাড়ছে। বাংলাদেশের বাজারে কোরীয় গাড়ির আমদানিকারকদের গাড়ি বিক্রির পরিমাণও বাড়ছে, কারণ কোরীয় গাড়ি গুণে ও মানে অনেক ভালো এবং বিশ্বের অন্যান্য নামী-দামী ব্রান্ডের চাইতে দামেও সাশ্রয়ী। এসময় তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশে মানসম্মত গাড়ির ক্রেতারা কোরিয়ান ব্রান্ডের কারগুলোকে তাদের অনন্য মান, ডিজাইন এবং স্থায়িত্বের কারণে পছন্দ করেন।

বিআরটিএ জানায়, ২০১৭ সালে বাংলাদেশে মোট ১৩৫০ ইউনিট কেরিয়ার তৈরি কার বিক্রি হয়েছে, ২০১৬ সালে যার পরিমাণ ছিলো ১১৬০ ইউনিট এবং ২০১৫ সালে কোরীয় গাড়ি বিক্রি হয়েছে ১ হাজার ১০ ইউনিট। গত বছর বিআরটিএ মোট ২১ হাজার ৯৫৮ টি গাড়ির নিবন্ধন দিয়েছে যা ২০১৬ সালে ছিলো ২০ হাজার ৩০৪টি এবং ২০১৫ সালে ২১ হাজার ৬২টি ইউনিট।
বর্তমানে বাংলাদেশে কারের চাহিদা দ্রুতগতিতে বৃদ্ধি পাচ্ছে। বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ জানায়, বাংলাদেশে কারের বাজার চাহিদা চলতি বছর ২৫০ কোটি ডলারের হবে। বোস্টন কনসালটিং গ্রুপ নামের একটি বহুজাতিক মার্কিন পরামর্শক সংস্থা জানিয়েছে, প্রতিবছর প্রায় ২০ লাখ বাংলাদেশি নাগরিক মধ্যবিত্ত এবং উচ্চবিত্ত শ্রেণীর তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হচ্ছেন। দ্য স্টার

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ