প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সংসদে থাকা দলগুলো নিয়ে নির্বাচনকালীন সরকার গঠন করতে হবে : এরশাদ

মো. ইউসুফ আলী বাচ্চু ও শিহাবুল ইসলাম ও হ্যাপি আক্তার : জোটগতভাবে ৩শ’ আসনে নির্বাচন করতে চাই। সংসদে থাকা দলগুলো নিয়ে নির্বাচনকালীন সরকার গঠন করতে হবে এবং নির্বাচনের জন্য অনুকল পরিবেশ তৈরি করতে হবে। এসব কথা বলেছেন জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। আজ শনিবার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সম্মিলিত জাতীয় জোটের মহাসমাবেশে ভাষণে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আমার এই জীবন দেশ ও জাতীর জন্য উৎসর্গ করতে চাই। আমরা জাতীয় নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত। ৩’শ আসনে জোট বদ্ধভাবে নির্বাচন করার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি। তবে নির্বাচন নিয়ে শংসয় আছে। তবে এই নির্বাচন সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হতে হবে। নির্বাচন পদ্ধতি পরিবর্তন ও বিচার বিভাগের স্বাধীনতা চাই।

এরশাদ বলেন, আমাদের আমাদের একটাই লক্ষ প্রাদেশিক সরকারব্যবস্থা করা, সংখ্যালঘুদের আসন সংরক্ষণ ও বিচার বিভাগের স্বাধীনতা, ধর্মীয় মূল্যবোধ, কৃষকের কল্যাণ সাধন, সন্ত্রাস দমনে কঠোর ব্যবস্থা, নিরাপদ সড়ক, সাধারণ মানুষের উপকার করার জন্য জাতীয় পার্টি যা যা করা দরকার আমরা করব।

তিনি বলেন, আমি ক্ষমতা ছেড়ে যাওয়ার পর অনেক নির্যাতন নিপীড়ন সহ্য করেছি উল্লেখ করে এরশাদ বলেন, আগাম নির্বাচন হয়তোবা আমার জীবনের শেষ নির্বাচন, তাই আমার জীবন উৎসর্গ করতে চাই দেশ ও জাতির জন্য। আজ থেকে আমার এ জীবন দেশ ও জাতির জন্য উৎসর্গ করলাম।

নির্বাচন নিয়ে শংঙ্কা প্রকাশ করে সাবেক এই সেনাপ্রধান বলেন, বর্তমান পরিস্থিতির মধ্যে আগামী নির্বাচন স্বচ্ছ হবে বলে মনে হয় না। আমারা জাতীয় পার্টির সব সময় নির্বাচন করেছি আজও আমরা নির্বাচনে যাওয়ার জন্য প্রস্তুত তবে অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচন চাই তার নিশ্চয়তা চাই। আমাদের একটাই দাবি নির্বাচনকালীন সরকারে সংসদে যারা আছি সকল দলের সমন্বয়ে সরকার গঠন করতে হবে।

একটাই মুক্তির পথ উল্লেখ করে এরশাদ বলেন, জাতীয় পার্টি সরকারে আসলে দেশের জনগণ মুক্তির পথ খুঁজে পাবে। আমরা ক্ষমতায় গেলে প্রাদেশিক সরকার করব। আমি ক্ষমতা ছাড়ার পর সকল নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে আমরা নির্বাচন পদ্ধতি পরিবর্তন করতে চাই, বিচার বিভাগের স্বাধীনতা চাই, এদেশের কল্যাণ করতে চাই সন্ত্রাস দমনে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে চাই। জমি নষ্ট করা যাবে না তাদের নিরাপত্তা চাই, শিক্ষা পদ্ধতি অস্কার চাই, এই শিক্ষা পদ্ধতির জাতিকে অন্ধকারে নিয়ে যাচ্ছে। সড়ক নিরাপত্তা চাই, বাচ্চারা বলে সরকারের মেরামত করা প্রয়োজন আমরাও মনে করি মেরামত করা প্রয়োজন। শিল্প অগ্রগতি সাধন করতে চাই যাতে বেকার দূর হয়।

এ বছরের জন্য অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টি করতে হবে আমরা নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত আমরা এখন থেকেই নির্বাচন এই নির্বাচনের জন্য প্রস্তুতি নিতে চাই এখন থেকে শুরু হলো নির্বাচনে প্রস্তুতি । এ সময় উপস্থিত ছিলেন, দলের চেয়ারম্যান এরশাদ। কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদ, কো-চেয়ারম্যান জি এম কাদের, মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমিন হাওলাদার, প্রেসিডিয়াম সদস্য আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, কাজী ফিরোজ রশীদ, প্রফেসর দেলোয়ার হোসেন, এস এম ফয়সল চিশতী, এম এ সাত্তার, ইয়াহয়া চৌধুরী এমপি, সাহিদুর রহমান টেপা, মসিউর রহমান রাঙ্গা, ফখরুল ইমাম, সুনীল শুভরায়, মাসুদ পারভেজ সোহেল রানা, মীর আব্দুস সবুর আসুদ, নাসরিন জাহান রত্না, লিয়াকত হোসেন খোকা এমপি, তাজ রহমান, সালমা ইসলাম এমপি, আলমগীর সিকদার লোটন, অনন্যা হোসেন মৌসুমী প্রমুখ সমাবেশে উপস্থিত আছেন।

 

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ