প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হাতে আত্মসমর্পণ করেন ৪৩ জন দস্যু

আশরাফুল করিম নোমান, (মহেশখালী) কক্সবাজার : শনিবার (২০ অক্টোবর) কক্সবাজারের মহেশখালীতে র‌্যাবের আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয় আলোচিত আত্মসমর্পণ অনুষ্ঠান। উক্ত অনুষ্ঠানে উপকূলীয় ৬ দস্যু বাহিনীর ৪৩ জন সদস্য ৯৪টি বন্দুক ও প্রায় ৮ হাজার রাউন্ড গুলি জমা দিয়ে স্বরাস্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের হাতে আত্মসমর্পণ করেন বলে জানাগেছে।

সূত্র জানায়, কক্সবাজারের উপকূলীয় মহেশখালী-কুতুবদিয়া দ্বীপসহ সমগ্র উপকূলীয় এলাকায় বর্তমানে একাধিক সন্ত্রাসী বাহিনী সক্রিয় রয়েছে। এসব বাহিনীর শত শত সদস্য সমুদ্র উপকূলীয় পাহাড়ী এলাকায় ত্রাস চালিয়ে আসছিল।

সর্বশেষ গত কয়েকদিন আগেও মহেশখালীর সোনাদিয়াসহ আশপাশের এলাকায় একাধিক ট্রলার দস্যুতার শিকার হয়। একই ভাবে উপকূলে সন্ত্রাসী গ্রুপগুলো ধারাবাহিকভাবে সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চালিয়ে আসছিল। তালিকাভূক্ত এসব সন্ত্রাসী তাদের অস্ত্র ও গোলাবারুদ জমা দিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসার প্রত্যয় ব্যক্ত করলে র‌্যাবের উদ্যোগে বড় আয়োজনের মাধ্যমে এ আত্মসমর্পণ অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়।

উপকূলীয় এলাকার আলোচিত সন্ত্রাসী গ্রুপ কালাবদা বাহিনী, জালাল বাহিনী, আনজু বাহিনী, রমিজ বাহিনী, আলা উদ্দিন বাহিনী ও আয়ুব বাহিনীর ৪৩ জন সদস্য আধুনিক এসএমজিসহ ৯৪ টি অস্ত্র ও ৮ হাজার রাউন্ড গুলিসহ আত্মসমর্পণ করেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে আছেন র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ, র‌্যাব-৭ প্রধান লে. কর্নেল মিফতাহ উদ্দিন আহমেদ প্রমুখ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ