প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতিস্তম্ভ পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করলো ছাত্রলীগ

নিনা আফরিন,পটুয়াখালী : পটুয়াখালীতে ছাত্রলীগের উদ্যোগে শুরু হয়েছে শহর পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতার কাজ। বুধবার সকালে পটুয়াখালী জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি হাসান সিকদার ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীদের নিয়ে প্রথমে বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়কের পটুয়াখালীর চৌরাস্তায় মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতিস্তম্ভে লাগানো ব্যানার, ফেস্টুন অপসারণের কার্যক্রম শুরু করেন। এ সময় তারা স্মৃতিস্তম্ভের পাদদেশে ময়লা আর্বজনা ও আগাছা পরিস্কার করেন।

এ প্রসঙ্গে জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি হাসান সিকদার জানান, পটুয়াখালী চৌরাস্তায় স্থানীয় সরকার বিভাগের অর্থায়নে মহান মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি স্তম্ভটি করা হয়েছে বর্তমান সরকারের আমলে। দৃষ্টি নন্দন এ স্থাপনাটিতে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, কলেজ, পলিটেকনিকসহ বিভিন্ন মানুষ ব্যানার ফেষ্টুন দিয়ে আটকে রেখেছে। বর্তমানে অবস্থা এমন হয়েছে যে, সড়কের একপাশ থেকে অন্য পাশ দেখা পর্যন্ত যায় না। ফলে দুর্ঘটনার ঝুঁকি তৈরী হয়েছে। এছাড়া সরকার দলীয় লোকজনের ব্যানার ফেষ্টুন বেশি থাকায় কেউ সাহস করে তা খুলছে না। জেলা ছাত্রলীগ তাই নিজ উদ্যোগে স্তম্ভের পাদদেশে আগাছা এবং পানি দ্বারা লাগানো পোষ্টার ধৌত করে স্তম্ভের মূল সৌন্দর্য্যে ফিরিয়ে আনেন। শহরের সৌন্দার্য্য ফিরিয়ে আনতে পালাক্রমে শহরের আরো কয়েকটি স্থানে ছাত্রলীগ–পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতার কাজ করবে বলে জানান হাসান সিকদার। এ সময় পটুয়াখালী সরকারী কলেজ ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক আবুল বাশার আরজু, পলিটেকনিক ছাত্রলীগ সভাপতি অহিদ ছরোয়াদ সম্রাট, ছাত্রলীগ নেতা হৃদয় আশিষ, আল আমিনসহ অর্ধশত নেতাকর্মীরা পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা কর্যক্রমে অংশগ্রহণ করেন।

এদিকে ছাত্রলীগের এ উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছে শহরের বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ। শহরকে পরিস্কার রাখতে শুধু পৌর কর্তৃপক্ষের দায়িত্ব না দিয়ে নতুন প্রজন্মের প্রতিনিধিরা এ দায়িত্ব নিজেদের কাঁধে তুলে নেয়ায় তাদের অভিনন্দন জানিয়েছেন তারা। সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট পটুয়াখালী জেরা শাখার সাধারণ সম্পাদক মুজাহিদুল ইসলাম, সুশাসনের জন্য নাগরিক(সুজন) জেলা সভাপতি মানস কান্তি দত্ত,প্রেসক্লাব সভাপতি কাজল বরণ দাসসহ একাধিক ব্যক্তি ছাত্রলীগের এ কার্যক্রমকে অভিনন্দন জানিয়েছেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত