প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আড়াইহাজারে ২দিনেও গ্রেফতার হয়নি ধর্ষণ মামলার আসামি

প্রতিনিধি,আড়াইহাজার: নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে ১৫ বছর বয়সী এক কিশোরীকে গণধর্ষণের ঘটনার পর দুইদিনেও আসামিদের গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

মঙ্গলবার (১৬অক্টবর) ধর্ষিতার মা রিনা বেগম বাদী হয়ে মামলাটি করেন। মামলায় তিনজনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও একজনকে আসামি করা হয়েছে। এরা হলেন স্থানীয় ছোট মোল্লার চর আব্বাস আলীর ছেলে শেখ ফরিদ (২২), নাজিম উদ্দিনের ছেলে সাইফুল (২০), ইব্রাহিমের ছেলে সফিকুল ইসলাম (২২)।

তবে ধর্ষকদের পালাতে সহযোগিতার অভিযোগে পুলিশ ওই এলাকার মৃত রজব আলীর ছেলে আব্বাস আলী নামে এক ব্যাক্তিকে গ্রেফতার করে আজ বুধবার আদালতে পাঠিয়েছেন। মঙ্গলবার (১৬অক্টবর) রাতে তার নিজ বাড়ি থেকে তাকে আটক করা হয়। সে এজাহার নামে আসামি শেখ ফরিদের বাবা।

এদিকে মামলা তুলে নিতে স্থানীয় একটি প্রভাবশালী মহল বাদীকে বিভিন্নভাবে হুমকী-ধমকী দিচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

প্রসঙ্গত, সোমবার (১৬অক্টবর) রাতে বাড়ি থেকে মুখ চেপে ধরে তুলে নিয়ে যায় চার বখাটে। পরে তাকে স্থানীয় আজিজ মাস্টারের বাড়ির পুকুরপাড়ে একটি পতিত বাগানে পালাক্রমে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল হক বলেন, আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। তবে আসামিদের পালাতে সহযোগিতার অভিযোগে এক ব্যাক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তদন্ত শফিকুল ইসলাম বলেন, আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশ সর্বাত্মক চেষ্টা করছে। আশা করছি খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে গ্রেফতার করা সম্ভব হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ