প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আমি ক্রিকেটে সব সময় সৎ থাকার চেষ্ঠা করেছি

স্পোর্টস ডেস্ক: শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের কিংবদন্তি সনাৎ জয়সুরিয়ার বিরুদ্ধে দুর্নীতিবিরোধী আচরণবিধি ভঙ্গের অভিযোগ এনেছে ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসি। লঙ্কান সাবেক অধিনায়ক ও সাবেক নির্বাচকের বিরুদ্ধে দুটি ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে। সোমবার আইসিসি এই অভিযোগ প্রকাশ করে। অভিযোগ প্রকাশ হওয়ার পর মঙ্গলবার সংবাদ মাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেছেন সনাৎ জয়সুরিয়া। সাবেক এই হার্ডহিটার ব্যাটসম্যান বলেছেন, আমি ক্রিকেটে সব সময় সৎ থাকার চেষ্ঠা করেছি ।

সম্প্রতি ফিক্সিং সংক্রান্ত তদন্তে আইসিসির দুর্নিতি বিরোধী ইউনিট আকসুর প্রধান অ্যালেক্স মার্শাল শ্রীলঙ্কা যান। এসময় জয়সুরিয়ার কাছ থেকে প্রয়োজনীয় সহযোগিতা পাননি এমনটিই উঠে এসেছে অভিযোগে। জয়সুরিয়ার বিরুদ্ধে আইসিসির অভিযোগের প্রথম ধারায় রয়েছে আকসুর তদন্ত কাজে ঠিকভাবে সহযোগিতা না করা এবং প্রয়োজনীয় তথ্য সরবরাহ না করা। দ্বিতীয়- আকসুর দুর্নীতি বিরোধী তদন্তে কাজে লাগতে পারে এমন কোনো তথ্য গোপন করার চেষ্টা করা বা বিলম্ব করা।

অভিযোগের প্রেক্ষিতে আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য জয়সুরিয়াকে ১৪ দিন সময় বেঁধে দেওয়া হয়েছে। মঙ্গলবার সংবাদ মাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে জয়সুরিয়া প্রথমেই বললেন, ‘প্রাথমিকভাবে আমি ১৪ দিনের মধ্যে আমার প্রতিক্রিয়া জমা দেব। আমি আইনি পরামর্শের মধ্যে রয়েছি। যে কারণে আমার এমন কোনো মন্তব্য করা ঠিক হবে না, যা আইসিসির আইনের বিরুদ্ধে যাবে।’
তবে জয়সুরিয়া একটা কথা বলতে ভুললেন না, ‘এই অভিযোগ ম্যাচ ফিক্সিং, পিচ ফিক্সিং বা এমন কোনো ঘটনার সঙ্গে আমার জড়িত থাকার কথা বলে না।’
জয়সুরিয়া অভিযোগের বিষয়ে নিজের মতামত প্রকাশ করলেন এভাবে, ‘অভিযোগ করা হয়েছে আমি তাদের প্রতি সহযোগী ছিলাম না এবং তাদের তদন্তে সাহায্য করিনি। আমি সব সময় সততার সঙ্গে নিজেকে পরিচালিত করেছি। খেলা সম্পর্কিত বিষয়ে সব সময় নিজেকে স্বচ্ছতার মধ্যে রেখেছি এবং আমি সেটা করে যাবো।’

সংবাদ মাধ্যম বিবিসি নিজম্ব সূত্রের কথা উল্লেখ করে তাদের প্রতিবদনে জয়সুরিয়ার প্রতি অভিযোগের নির্দিষ্ট একটি কারণের কথা বলছে। জয়সুরিয়া নাকি আকসুর তদন্তের কাজে সহায়তার জন্য তার ব্যবহার করা মোবাইল ব্যক্তিগত কারণে হস্তান্তরে রাজি হননি।