প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

এবার বক্সিং রিংয়ে নামলো সৌদি নারীরা

সময় টিভি : বক্সিং খেলতে এবার প্রস্তুত সৌদি আরবের নারীরা। পুরুষদের পাশাপাশি সৌদি নারীদের কাছেও সমান জনপ্রিয়তা পাচ্ছে বক্সিং। নানা বাধা সত্ত্বেও নারীরা এগিয়ে আসছে এই খেলায়। এ খেলার সাথে সম্পৃক্ত হতে পেরে দারুণ উচ্ছ্বসিত সৌদি আরবের নারীরা। রক্ষণশীল সমাজ ব্যবস্থাকে পাশ কাটিয়ে বক্সিংয়ের সাথে নারীদের যুক্ত হওয়াকে ইতিবাচক হিসেবেই দেখছেন দেশটির নারীরা।

সৌদি নারীর হাতে বক্সিং গ্লাভস! কিঞ্চিৎ বিস্ময়কর কিংবা অবাক হবার মতোই দৃশ্য। কেননা দেশটা যে সৌদি আরব। সম্প্রতি দেশটির প্রথা ভেঙে বেরিয়ে আসতে শুরু করেছে নারীরা। স্টেডিয়ামে বসে খেলা দেখার বিধিনিষেধ উঠে গেছে। গাড়ি চালানোর লাইসেন্সও পাচ্ছে সৌদি নারী। তারই ধারাবাহিকতায় এবার সৌদি নারীরা বক্সিং রিংয়ে।

পুরুষদের পাশাপাশি নারীরাও এই খেলায় অংশ নিতে শুরু করেছে। এই সুযোগ পাওয়ায় দারুণ উচ্ছ্বসিত দেশটির নারীরা। চাহিদার সাথে পাল্লা দিয়ে বাড়ানো হচ্ছে তাদের নানা সুযোগ-সুবিধা।

এক নারী বক্সার বলেন, ‘আমি দুই বছর ধরে এখানে অনুশীলন করছি। শুরুতে অনুশীলন ব্যবস্থা খুব একটা উন্নত ছিলো না। ধীরে ধীরে সব পরিবর্তন হচ্ছে। অনেক নারীই এখানে আসছেন বক্সিং অনুশীলন করতে। এর সাথে সম্পৃক্ত হতে পেরে নিজেকে গর্বিত মনে করছি।’

আরেকজন বলেন, ‘আমি খেলাধুলা অনেক পছন্দ করি। বক্সিং খেলাটা পুরুষদের জন্যই উন্মুক্ত ছিলো। কিন্তু এখন আমরাও খেলছি। শুরুতে এটি কঠিন মনে হতো। ধীরে ধীরে খেলাটা আত্তীকরণ করছি।’

সামাজিক পট পরিবর্তনের ফলে সৌদি আরবের নারীদের মাঝে প্রভাব বিস্তার করছে নানারকম খেলা। আর তাই বক্সিংকেও দেয়া হচ্ছে বেশ গুরুত্ব। পাঁচজন পেশাদার বক্সারের অধীনে প্রায় ৬০ জন সৌদি নারীর জন্য ১০টি বক্সিংয়ের ক্লাস নেয়া হচ্ছে।
এক ট্রেইনার বলেন, ‘বক্সিং খেলার সাথে সম্প্রতি নারীরা সম্পৃক্ত হওয়া শুরু করেছে। এটি অনেক সুন্দর খেলা। তবে সবার আগে এর জন্য নিজের ফিটনেস ঠিক রাখাটাও জরুরি।’ খেলাধুলার ইতিবাচক প্রভাব অতি রক্ষণশীল সৌদি আরবের নারীদের এগিয়ে যাবে, এমন প্রত্যাশা সবার।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ