প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিএনপির সাথে ড. কামালের ঐক্য

মোহাম্মদ হাশেম

ড. কামাল একজন স্বনামখ্যাত এবং সর্বজন শ্রদ্ধেয় ব্যক্তিত্ব। জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর অতি ঘনিষ্ট যে কয়জন আওয়ামীলীগের নেতা এখনো আমাদের মাঝে আছেন, ড কামাল তাদের মধ্যে অন্যতম বয়োজ্যেষ্ঠ একজন। যার গায়ে এখনো লেপটে আছে, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর গন্ধ ও ছোঁয়া।
৯৬ এর পর আওয়ামীলীগের বাইরে চলে গেলেও, হৃদয়ে বঙ্গবন্ধু এবং স্বাধীনতা, মুক্তিযুদ্ধ ও জয়বাংলার চেতনাকে ধারণ করা থেকে কোন বিচ্যুতি এ যাবৎ তার মধ্যে দেখা যায়নাই। সঙ্গত কারনেই, দলের বাইরে চলে গেলেও, আওয়ামী ঘরানার অনেকের কাছে তিনি আগের মতোই অনেক উচ্চাসনে।
আওয়ামীলীগের বাইরে গিয়ে আলাদা দল ‘গণফোরাম’ গঠন করার পর বহুবার তিনি ঘোষণা করেছেন জামায়াতের সাথে তার কোন আপোষ নাই! যেখানে জামায়াত সেখানে তিনি নাই! কিছুদিন আগে বিএনপি’র সাথে ঐক্য প্রসঙ্গে, আবারো দৃঢ়তার সহিত তিনি একই কথা বলেন! ড. কামালের কাছে প্রশ্ন, কেন? জামায়াত স্বাধীনতা বিরোধী, জামায়াত যুদ্ধাাপরাধীদের দল তাই ? তো স্বাধীনতা বিরোধী কি কেবল জামায়াত একাই ? মুসলিম লীগ, পিডিপি, আরো নানান ইসলামী দল, ন্যাপ ভাসানীর একাংশ এবং ব্যক্তি পর্যায়ে ধর্ম ভিত্তিক মৌলবাদী চিন্তা চেতনার একদল সুশীল-বুদ্ধিজীবী, আর আঃ আলীম, সা কা চৌধুরীর মতো যুদ্ধাপরাধীরা? তারা কোথায় এবং কোন দলের? বিএনপিতে নাম লিখালেই কি হালাল হয়ে গেল?
৭৫ এর পর সামরিক শাসক জিয়ার উপদেষ্টা ও মন্ত্রী পরিষদ এবং ৭৯’র নির্বাচনে বিএনপি’র প্রার্থীদের সিংহ ভাগই প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ ভাবে ৭১ এর পরাজিত পক্ষ বা তাদের দোসর।
এই সব স্বাধীনতা বিরোধীদের ওপর ভর করেই তো ৭৫ এর পর সামরিক শাসক জিয়ার, আগে ‘জাগদল’ এবং পরে বিএনপি’ জন্ম! পরবর্তিতে বিভিন্ন সময়ে, আওয়ামী বিদ্বেষ সহ নানান সমিকরনে, অনেক মুক্তিযোদ্ধা এবং স্বাধীনতার স্বপক্ষের অনেকের সমাবেশ ঘটলেও, বিএনপি মূলত ৭৫’ এর পর একজন বিতর্কিত বীর মুক্তিযোদ্ধার নেতৃত্বে, জামায়াত বাদে সকল স্বাধীনতা বিরোধী এবং পাকিস্তানি ভাবধারা ও ধর্ম ভিত্তিক মৌলবাদী চিন্তা চেতনার মানুষের একটি দল!
পরম শ্রদ্ধেয় ড. কামালের বিএনপি’ এই ইতিহাস অজানা থাকার কথা নয়। অজানা থাকার কথা নয় ৭৫’এর হত্যাযজ্ঞে এবং বর্বর হত্যাকারীদের পক্ষে বিএনপি’র জন্মদাতাদের ভূমিকার কথা ! অজানা থাকার কথা নয় নরাধম খুনীদের হেফাজতে, লালন-পালনে, প্রতিষ্ঠা সহ নানানভাবে পূরস্কৃত করায় এবং বিচার বন্ধে বিএনপি’র ভূমিকার কথা! ৯৬ এর পর বিচার আরম্ব হলে, খুনীদের রক্ষায় বিচার কাজ বাধাগ্রস্ত করতে দেশেবিদেশে নানান তৎপরতা এবং ‘কিসের বিচার করবে’(!) ধরনের তাচ্ছিল্যকর মন্তব্যে বিচার কাজকে বিদ্রুপ-কটাক্ষ করার কথা !
অজানা থাকার কথা নয় আমাদের স্বাধীনতার মহান নেতা জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর অপমান-অবমাননা-অবমূল্যায়নে তথা তার(বঙ্গবন্ধুর) নাম ইতিহাস থেকে চিরতরে মুছে দেয়ার জন্যে বিএনপি’র জঘন্য আচরন ও নানান অপ-পরিকল্পনার কথা! ১৫ আগস্ট জাতির জনকের জন্যে, জাতির শোক প্রকাশকে বিদ্রুপ-কঠাক্ষ ও খাটো করার কুমতলবে, ৯৬ এর পর তৈরী করা খালেদা জিয়ার ভুয়া জন্মদিনের উল্লাস করার কথা! অজানা থাকার কথা নয়, বিএনপি’র বর্তমানের ভারপ্রাপ্ত এবং ভবিষ্যতের কর্নধার বঙ্গবন্ধুকে পাকবন্ধু-রাজাকার’ বলে কটূক্তি করার এবং জামায়াত-শিবির আর বিএনপি-ছাত্রদলকে একমায়ের পেটের ভাই বলার কথা!!
প্রশ্ন জাগে এর পর, ড. কামালের মতো একজন বঙ্গবন্ধুপ্রেমী, সারা জীবন ধরে যিনি হৃদয়ে ধারণ করে আছেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর নাম, ছবিও আদর্শকে, তিনি তার জীবনের এই পর্যায়ে, এমন এক বিএনপি’র সাথে ঐক্যে যান কি করে? বিএনপি কি বঙ্গবন্ধু প্রসঙ্গে তার অবস্থান থেকে সরে এসেছে? না কি সরে আসার কোন ঘোষণা দিয়েছে? বিএনপি কি জামায়াত থেকে বের হয়ে এসেছে ? না কি জামায়াতমুক্ত হবার কোন ঘোষণা দিয়েছে? তাহলে? এমতাবস্থায়, স্বাধীনতার পক্ষের এবং যারা জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে ভালবাসেন, হৃদয়ে ধারণ করেন- এহেন বিএনপি’র সাথে তাদের কোন প্রকার ঐক্য হতে পারেনা। এক সাথে চলা হতে পারেনা! বঙ্গবন্ধুর একদার ঘনিষ্ট, আমাদের স্বাধীনতা ও মুক্তিমুদ্ধের হিরো-সুপার হিরো যারা এ পথে পা দিয়েছেন, পরিণামে তারা নিজেরাই নিজেকে হিরো থেকে জিরোতে নামিয়ে এনেছেন! ড কামাল হোসেন, আওয়ামীলীগ ছেড়ে গণফোরাম করার পর, এক পর্যায়ে অনেকেই তাকে ছেড়ে চলে যান। একাকী হয়ে যাওয়ার পর ও হাল ছাড়েননি।
কথা বলেছেন ! আওয়ামীলীগের একাংশের বিরূপ সমালোচনা এবং নানানভাবে নিগৃহীত হবার পরেও, মানবাধিকার, গণতন্ত্র, আইনের শাসন এবং মূল্যবোধ নিয়ে কথা বলেছেন! আঁকড়ে ধরে রেখেছেন বঙ্গবন্ধুকে, বঙ্গবন্ধুর আদর্শ তথা স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে। রাজনীতির চলমান বাস্তবতায়, তার এই বয়সে তিনি আর কি বা কতটুকু করতে পারবেন তা বলা মুশকিল! তবে বিএনপি’র মতো একটি দলের সাথে, তার একাতœতাতে তিনি বিতর্কিত হবেন, সর্বজনে তার সন্মান, শ্রদ্ধা ও উচ্চাসনের অনেক ক্ষতি হবে, এ কথা নিশ্চিত করেই বলা যায়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ