প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

স্বতন্ত্র নয়, রাজনৈতিক প্রার্থী খুঁজছেন ভোটাররা

সময় টিভি অনলাইন : ফেনী-৩ আসনের মানুষ গত সংসদে নির্বাচিত স্বতন্ত্র প্রার্থীকে নিয়ে অবহেলায় কাটিয়েছে। আর এই ক্ষোভেই এলাকার ভোটাররা এবার খুঁজছেন রাজনৈতিক প্রার্থী। আগামী নির্বাচনে সমুদ্র উপকূলীয় এই আসনে নির্মাণাধীন দেশে সবচে বড় অর্থনৈতিক অঞ্চলকে ঘিরে গুরুত্বপূর্ণ আসনটি বড় দুই দলই তাদের প্রার্থী জয়ী করতে মরিয়া।

ফেনীর সমুদ্র উপকূলীয় সোনাগাজী ও দাগনভূঞা উপজেলার দুটি পৌরসভা এবং ১৭টি ইউনিয়ন নিয়ে ফেনী-৩ আসন। এ আসনে গত ১০টি সংসদ নির্বাচনে ৫ বারই জিতেছে বিএনপি। ৭৩ ও ৭৯‘র পর আসনটিতে আওয়ামী লীগ আর জয়ের স্বাদ পায়নি।

সেক্ষেত্রে জাতীয় পার্টি ২ ও সবশেষ স্বতন্ত্র প্রার্থী ১বার জয়ী হয়েছে। এবার একাদশ সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে আওয়ামী লীগ অর্থনৈতিক অঞ্চল, নদীর শাসন করে ভাঙ্গন রোধ, দুই উপজেলার সেতু বন্ধনসহ মোটা দাগের দৃশ্যমান উন্নয়ন তুলে ধরে ভোটারদের মন জয় করতে চাইছেন। অপরদিকে বিএনপি ভোটের শান্তি পরিবেশ খুঁজে বেড়াচ্ছেন। আর ভোটাররা চাচ্ছেন জনবান্ধব প্রতিনিধি।

এ আসনের বিএনপি নেতার দাবি মাঠ গোছাতে পুলিশি হয়রানির মুখে পড়ছেন তারা। অন্যদিকে আওয়ামী লীগ নেতা বলছেন ভোটরের কাছে যাওয়ার মুখ নেই বলে বিএনপি মিথ্যাচার করে মুখ লুকাচ্ছে।

ফেনী দাগনভুঞা উপজেলা বিএনপি সাধারণ সম্পাদক এ.কে.এম ওবায়দুল হক ছুট্টু, ‘পুলিশি হয়রানির জন্য আমাদের কমিটি করতে সমস্যা হচ্ছে। আমাদের এক জায়গা জড় হতে দেওয়া হয় না।’

ফেনী সোনাগাজী উপজেলা আওয়ামী লীগ সাবেক সভাপতি জেড এম কামরুল আনাম, ‘সত্যিকারে ভোটারদের কাছে যাওয়ার মত তাদের মুখ নেই। এজন্য মিথ্যাচার করছে।

এ আসনে মোট ভোটার ৩ লাখ ৩১ হাজার ২‘শ ৪৫ জন। গত নির্বাচনের পর আসনটিতে ৬৪ হাজার ২‘শ ৯৫ জন নতুন ভোটার যোগ হয়েছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত