Skip to main content

খাজা ও পেইন বীরত্বে নাটকীয় ড্র দুবাই টেস্ট

স্পোর্টস ডেস্ক : দুবাইতে জয়ের সুবাস পেতে শুরু করেছিল পাকিস্তান। যেখানে জয়ের জন্য অস্ট্রেলিয়ার দরকার ৪৬২ রান। তাও আবার চতুর্থ ইনিংসে। দুবাইর উইকেটে পাকিস্তানের মতো বোলিং আক্রমণের সামনে এই রান তাড়া করে জেতাটা অসম্ভব তো বটেই, ড্র করাটাও দুরূহ ব্যাপার। পাকিস্তানের সমর্থকরা ধরেই নিয়েছিল মিরাকল কিছু না ঘটলে এই টেস্ট অনায়াসেই জিতে নিবে তারা। কিন্তু শেষ দিনে মিরাকল কিছুই ঘটাল অস্ট্রেলিয়া। দুবাই টেস্টের চতুর্থ ইনিংসে ১৩৯.৫ ওভার খেলে ৮ উইকেট হারিয়ে ৩৬২ রান তুলে অবিশ্বাস্য এক ড্র করেছে অস্ট্রেলিয়া। আর সেটা সম্ভব হয়েছে উসমান খাজা, ত্রাভিস হেড ও অধিনায়ক টিম পেইনের বীরোচিত ইনিংসে। ৩ উইকেট হারিয়ে ১৩৬ রান তুলে চতুর্থ দিন শেষ করেছিল অস্ট্রেলিয়া। ক্রিজে ছিলেন খাজা (৫০) ও ত্রাভিস হেড (৩০)। শেষ দিনে জয়ের জন্য অস্ট্রেলিয়ার দরকার ছিল ৩২৬ রান। আর পাকিস্তানের দরকার ছিল ৭ উইকেট। কিন্তু পঞ্চম ও শেষ দিনে অবিশ্বাস্য, অতিমানবীয় ব্যাট করলেন উসমান খাজা। তাকে যোগ্য সহায়তা দিলেন হেড ও টিম পেইন। দলীয় ২১৯ রানের মাথায় ত্রাভিস হেড ফিরে যান। যাওয়ার আগে খাজার সঙ্গে ১৩২ রানের জুটি গড়ে যান। ১৭৫ বল খেলে ৫ চারে করে যান ৭২ রান। কিন্তু খাজা থাকেন অবিচল। তুলে নেন টেস্ট ক্যারিয়ারের সপ্তম সেঞ্চুরি। দলীয় ৩৩১ রানের মাথায় ইয়াসির শাহ’র বলে এলবিডব্লিউ হয়ে সাজঘরে ফিরেন তিনি। কিন্তু কাজের কাজ করে আসেন। খেলে আসেন ১৪১ রানের নজড়কাড়া ইনিংস। তাতে এশিয়ায় পঞ্চম কোনো ব্যাটসম্যান হিসেবে চতুর্থ ইনিংসে সেঞ্চুরির কৃতিত্ব দেখান তিনি। ৩৩১ রানে খাজা ফিরে যাওয়ার পর ৩৩৩ রানে মিচেল স্টার্ক ও একই রানে পিটার সিডল আউট হলে শঙ্কা জাগে হারের। কিন্তু অধিনায়ক টিম পেইন নাথান লায়নকে সঙ্গে নিয়ে হাল ধরে বাকি সময়টুকু পার করেন। নিশ্চিত করেন অনন্য এক ড্র। পেইন ১৯৪ বল খেলে ৫ চারে ৬১ রানে অপরাজিত থাকেন। তার সঙ্গে ৩৪ বল খেলে ৫ রানে অপরাজিত থাকেন লায়ন। দুবাইতে রোববার পাকিস্তান প্রথম ব্যাট করতে নামে। দুই বছর পর দলে ফেরা মোহাম্মদ হাফিজের ১২৬, হারিস সোহেলের ১১০, আসাদ শফিকের ৮০ ও ইমাম-উল-হকের ৭৬ রানে ভর করে ৪৮২ রান তোলে তারা। জবাবে অস্ট্রেলিয়া তাদের প্রথম ইনিংসে অলআউট হয়ে যায় মাত্র ২০২ রানে। এরপর দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৮১ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করে পাকিস্তান। তাতে অস্ট্রেলিয়ার সামনে জয়ের লক্ষ্যমাত্রা দাঁড়ায় ৪৬২ রান। সেই রান তাড়া করতে নেমে উসমান খাজা, ত্রাভিস হেড ও টিম পেইনের নায়কোচিত ইনিংসে ভর করে অবিশ্বাস্য এক ড্র করে অস্ট্রেলিয়া। এমন টেস্টই তো প্রকৃত টেস্টের বিজ্ঞাপন। ১৪১ রানের ইনিংস খেলে ম্যাচসেরা হন উসমান খাজা। ১৬ অক্টোবর আবুধাবিতে শুরু হবে পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার দ্বিতীয় টেস্ট। সংক্ষিপ্ত স্কোর : পাকিস্তান : ৪৮২/১০ ও ১৮১/৬ ডিক্লে. অস্ট্রেলিয়া : ২০২/১০ ও ৩৬২/৮ ফল : ড্র ম্যাচসেরা : উসমান খাজা (অস্ট্রেলিয়া)।