প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

প্রধান নির্বাচন কমিশনারের কাছে মহিলা পরিষদের স্মারকলিপি
জাতীয় সংসদে ১৫০ আসন নারীদের জন্য সংরক্ষণের দাবি

মতিনুজ্জামান মিটু: জাতীয় সংসদে ৪৫০ আসন করে ১৫০টি নারীদের জন্য সংরক্ষণের দাবি জানিয়ে প্রধান নির্বাচন কমিশনারের কাছে স্মারকলিপি দিয়েছে বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ। মহিলা পরিষদের একটি প্রতিনিধি দল গতকাল বিকালে প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে. এম নূরুল হুদার সঙ্গে সাক্ষাৎ করে এ স্মারকলিপি দেন। এসময় অনেকের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি আয়শা খানম, সহসভাপতি রেখা চৌধুরী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রাখী দাশ পুরকায়স্থ ও সীমা মোসলেম, সহসাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট. মাসুদা রেহানা বেগম ও ডিরেক্টর অ্যাডভোকেসি এন্ড লবি জনা গোস্বামী।

স্মারকলিপিতে উল্লেখ করা হয়, সংসদে মোট আসন সংখ্যা বাড়িয়ে ৪৫০ করে ৩০০টি সাধারণ আসন এবং নারীদের জন্য ১৫০টি সংরক্ষিত রাখতে হবে। পাশাপাশি দুইটি সাধারণ নির্বাচনী এলাকাকে একত্রিত করে সংরক্ষিত আসনগুলো চিহ্নিত করতে হবে। এই আসনে নারী-পুরুষ উভয়ের সরাসরি ভোটের মাধ্যমে (সাধারণ আসনের মতো) নির্বাচন হবে। গণপ্রতিনিধিত্ব অধ্যাদেশ ২০০৯-এর ৯০ নং অনুচ্ছেদ কার্যকর করার জন্য যথাযথ উদ্যোগ নিতে হবে।

প্রতিটি রাজনৈতিক দলের কেন্দ্র থেকে তৃণমূলের সকল শাখায় ৩৩ শতাংশ নারীকে অর্ন্তভুক্ত রাখা বাধ্যতামূলক করতে হবে। কোন রাজনৈতিক দল যাতে নির্বাচনে মনোয়ন বাণিজ্য চালাতে না পারে সেদিকে কঠোর দৃষ্টি দিতে হবে। নির্বাচনী প্রচারণায় ধর্মের ব্যবহার সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ এবং এটিকে শাস্তিযোগ্য অপরাধ হিসেবে বিবেচনা করতে হবে। যুদ্ধাপরাধী, সাম্প্রদায়িক শক্তি, জঙ্গীবাদী, ধর্মের লেবাসধারী কেউ যাতে নির্বাচনে অংশ নিতে না পারে সে ব্যবস্থা করতে হবে।

একাদশ জাতীয় নির্বাচনে ‘না’ ভোট প্রয়োগের বিধান রাখতে হবে। নির্বাচনকে কালা টাকা ও পেশী শক্তির প্রভাবমুক্ত রাখতে হবে। নির্বাচনকালীন সময়ে নারী-পুরুষ, ধর্ম, বর্ণ, গোত্র নির্বিশেষে সকল সাধারণ জনগণ যাতে স্বেচ্ছায়, সুষ্ঠুভাবে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারে সেই লক্ষ্যে নির্বাচন পূর্ববর্তী, নির্বাচনকালীন এবং নির্বাচন পরবর্তী সময়ে যথাযথ নিরাপত্তা নিশ্চিত করার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবে।

নির্বাচনকালীন সময়ে নারী ভোটাররা যাতে নিরাপদে ও নির্বিঘেœ তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারে সেজন্য ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা এবং বুথের সংখ্যা বাড়াতে হবে।

স্মারকলিপি গ্রহন করে প্রধান নির্বাচন কমিশনার বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের প্রস্তাবনা বাস্তবায়নে যথাযথ পদক্ষেপ নেয়ার আশ্বাস দেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ