প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার মামলার রায়ে সরকারের ইচ্ছার প্রতিফলন ঘটেছে: কমরেড এম.এ সামাদ

রফিক আহমেদ : বাম ফ্রন্টের চেয়ারম্যান এম. এ সামাদ বলেছেন, ২১ আগস্ট মামলার রায়ে সরকারের ইচ্ছার প্রতিফলন ঘটেছে। আইনের প্রতি শ্রদ্ধা রেখেই বলছি আদালত যে রায় দিবে সেটা নিয়ে প্রশ্ন করা যাবে না, এই আইনটিকেও শাসকগোষ্ঠি নিজেদের অনুকূলে ব্যবহার করেছে। বৃহস্পতিবার রাজধানীর তোপখানা রোডস্থ বাম ফ্রন্টের কার্যালয়ে একান্ত সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন।

বাম ফ্রন্টের চেয়ারম্যান বলেন, নিম্ন আদালতকে সবসময় শাসকগোষ্ঠি নিয়ন্ত্রণ করার চেষ্টা করে এসেছে। সে কারণে জনগণের মনে সন্দেহের সৃষ্টি হয়েছে। ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার নিন্দা আমরা সবসময়ই করি, বিচারও চাই। কিন্তু বিচারের নামে প্রহসন চাই না। বিচারের রায় দেখে মনে হচ্ছে এটা সরকারের ইচ্ছার প্রতিফলন। আইন তার নিজস্ব গতিতে চলতে পারেনি।
তিনি বলেন, দেশবাসী জানে, আমাদের দেশের মন্ত্রীরা সবসময় আতঙ্কিত থাকে কখন চাকরি চলে যায়। তাদের মন্ত্রীত্ব নির্ভর করে এক ব্যক্তি বা পরিবারকে যতক্ষণ খুশি রাখা যায়, ততক্ষণ তৎকালীন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবর ছিলেন হাওয়া ভবনের তেমনি একই কর্মচারী। কর্তার ইচ্ছায় কর্ম সম্পাদিত হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, এখন যেমন গণভবনের ইশারায় সব চলে তখন হাওয়া ভবনের ইশারায় চলেছে। রায়ে লুৎফুজ্জামান বাবরের সর্বোচ্চ সাজা হলেও তার প্রভুদের বেলায় রায় ভিন্ন। এ কারণে রায়ের বিস্তারিত সম্পর্কে জানার আগ্রহও জনগণ হারিয়ে ফেলেছে। জনগণ সন্দেহ করছে যে, রায়ে সরকারের ইচ্ছার প্রতিফলন ঘটেছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত